শিরোনাম :

  • একদিন পিছিয়ে আজ হেমন্তের শুরু টেকনাফে পুলিশের সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে নিহত ২ বছিলায় জঙ্গি আস্তানায় অভিযান : তদন্ত প্রতিবেদন দাখিল ১৮ নভেম্বর সৌদি আরবে সড়ক দুর্ঘটনায় ৩৫ ওমরাহ যাত্রী নিহত পাক-ভারতের গোলাগুলি, নিহত ৪
সাফারি পার্কে জিরাফ পরিবারে নতুন অতিথি
শ্রীপুর প্রতিনিধি :
০৬ অক্টোবর, ২০১৯ ১৮:০৫:৩৯
প্রিন্টঅ-অ+


গাজীপুরের শ্রীপুরে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব সাফারি পার্কে ফের এক জিরাফ শাবকের জন্ম হয়েছে। এ নিয়ে পার্কে জিরাফের সংখ্যা দাঁড়ালো ১১টিতে। গত ২৭ আগস্ট বিকেলে এ শাবকের জন্ম হলেও শাবক ও তার মায়ের নিরাপত্তা বিবেচনা করে পার্ক কর্তৃপক্ষ বিষয়টি আজ (৬ অক্টোবর) গণমাধ্যমের কাছে প্রকাশ করেন। নতুন জন্ম নেয়া এ শাবকটি পুরুষ।

সাফারি পার্কের বন্যপ্রাণী পরিদর্শক সারোয়ার হোসেন খান জানান, দর্শনার্থীদের বিনোদনের জন্য ২০১৩ সালে দক্ষিণ আফ্রিকা হতে ১০টি জিরাফ আনা হয়েছিল। এসব জিরাফ থেকে এই পার্কে ইতিপূর্বে বেশ কয়েকবার জিরাফ শাবকের জন্ম হয়েছে। তবে অসুস্থ হয়ে কয়েকটি জিরাফের মৃত্যুও হয়েছে। এর মধ্যে গত ১৫জানুয়ারি পার্কের একমাত্র পুরুষ জিরাফের মৃত্যু হয়। এরপর থেকে জিরাফ পরিবার পুরুষ শূন্য ছিল। গত ২৭ আগস্ট এই জিরাফ শাবকের জন্ম হলেও নিরাপত্তার কথা বিবেচনা করে একমাসের বেশি সময় পর তা প্রকাশ করা হয়। বর্তমানে মা ও শাবক সুস্থ আছে। শাবকটি মায়ের দুধের পাশাপাশি ঘাসও খাচ্ছে। শাবকের খাদ্য নিরাপত্তার কথা বিবেচনা করে মা জিরাফকে কৃত্রিম খাবারও দেয়া হচ্ছে।

তিনি আরও জানান, জিরাফ মূলত আফ্রিকান তৃণভোজী স্তণ্যপায়ী প্রাণী। বিশ্বের সবচেয়ে লম্বা প্রাণী হিসেবে জিরাফকে বিবেচনা করা হয়। একটি জিরাফ লম্বায় ১৮ফুট পর্যন্ত হয়ে থাকে। ওজন হয় ১৫০০-৩০০০ পাউন্ড পর্যন্ত। এদের গলা লম্বা হয় ৬ ফুট পর্যন্ত। হৃদপিণ্ডে ৫৫ লিটার বায়ু ধারণ করতে পারে। জিরাফের মাথায় ২টি ভোতা শিং থাকে। এরা মূলত নিরিহ স্বভাবের সামাজিক প্রাণী। প্রধান খাবার গাছের পাতা। এক সপ্তাহ পর্যন্ত পানি না খেয়ে থাকতে পারে। একটি স্ত্রী জিরাফের গর্ভকাল ১৪ মাস। জন্মলগ্নে শাবকের ওজন হয় ৫০ থেকে ৬০কেজি।

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব সাফারি পার্কের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা তবিবুর রহমান জানান, জিরাফ বিদেশি প্রাণী হওয়ার পরও পার্ক কর্তৃপক্ষের নিবিড় পর্যবেক্ষণে ফের একটি শাবকের জন্ম হয়েছে। ইতোপূর্বে এই পার্কের একমাত্র পুরুষ জিরাফটি মারা যাওয়ায় আমরা আশাহত হয়েছিলাম। এবার একটি পুরুষ শাবকের জন্ম হওয়ায় আশার আলো দেখা দিয়েছে। নতুন শাবকটি সুস্থ অবস্থায় বড় হলে জিরাফের প্রজননে বড় ভূমিকা রাখবে।



আমার বার্তা/ ০৬ অক্টোবর ২০১৯/রহিমা


আরো পড়ুন