শিরোনাম :

  • রাজধানীর উত্তরখানে আগুনে একই পরিবারের ৮ জন দগ্ধ ভারতে আঘাত হেনেছে ঘূর্ণিঝড় তিতলিবাবরসহ ১৯ জনের মৃত্যুদণ্ড, তারেকসহ ১৯ জনের যাবজ্জীবনরায়কে ঘিরে ঢাকায় ব্যাপক নিরাপত্তা ব্যবস্থা২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলা মামলার রায় আজ
মালিতে জাতিগত সহিংসতায় নিহত ৯৫
আন্তর্জাতিক ডেস্ক :
১১ জুন, ২০১৯ ১০:৫০:২৭
প্রিন্টঅ-অ+


আফ্রিকার দেশ মালিতে জাতিগত সহিংসতায় অন্তত ৯৫ জন নিহত হয়েছে। রোববার রাতভর  ডোগন ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠীর মানুষদের গ্রামে হামলা চালিয়েছে প্রতিপক্ষ ফুলানি গোষ্ঠীর লোকেরা। সোমবার স্থানীয় কর্মকর্তারা এ তথ্য জানিয়েছেন।

জাতিসংঘের মুখপাত্র এরি কানেকো সাংবাদিকদের জানিয়েছেন, ‘আরো হামলা ঠেকাতে মালি সরকারকে’ জাতিসংঘের পক্ষ থেকে বিমান সহযোগিতা দেওয়া হয়েছে।

বানকার এলাকার মেয়র মৌলায়ে গুইন্দো রয়টার্সকে জানিয়েছেন, রোববার রাতে সাংহা জেলায় এ হামলার ঘটনা ঘটেছে। অন্ধকারে প্রতিবেশী বানকাস জেলা থেকে ফুলানিরা যেয়ে ডোগনদের গ্রামে হামলা চালায়।

প্রতিবেশী শহর বান্দিয়াগারার কর্মকর্তা সিরিয়াম কানৌতি বলেন, ‘ফুলানিদের সশস্ত্র লোকজন লোকদের ওপর গুলি ছোঁড়ে এবং গ্রাম জ্বালিয়ে দেয়।’

সাংহা মেয়র আলি দোলো জানান, ৯৫টি মৃতদেহ এখন পর্যন্ত পাওয়া গেছে। তবে গ্রামটি এখন জ্বলন্ত অবস্থায় রয়েছে। এ কারনে মৃতের সংখ্যা আরো বাড়তে পারে।

তিনি বলেন, ‘প্রায় ৩০০ বাসিন্দার মধ্যে কেবল ৫০ জনের সাড়া পাওয়া গেছে।’

ডোগন ও ফুলানি গোষ্ঠীর মধ্যে দ্বন্দ্ব বহু পুরোনো। এর মূল কারণ ডোগনরা প্রথাগত পদ্ধতিতে চাষবাস করে জীবিকা নির্বাহ করে। আর পশ্চিম আফ্রিকা থেকে আসা ফুলানি গোত্রের লোকেরা কিছুটা যাযাবর জীবনযাপন করে। এই দুই গোষ্ঠীর মধ্যে মূল বিরোধটি জমির মালিকানা নিয়ে।



আমার বার্তা/১১ জুন ২০১৯/জহির

 


আরো পড়ুন