শিরোনাম :

  • রাজধানীর উত্তরখানে আগুনে একই পরিবারের ৮ জন দগ্ধ ভারতে আঘাত হেনেছে ঘূর্ণিঝড় তিতলিবাবরসহ ১৯ জনের মৃত্যুদণ্ড, তারেকসহ ১৯ জনের যাবজ্জীবনরায়কে ঘিরে ঢাকায় ব্যাপক নিরাপত্তা ব্যবস্থা২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলা মামলার রায় আজ
নিত্য ব্যবহার্য জিনিস কতদিন পর বদলাবেন?
আমার বার্তা ডেস্ক :
০৯ মার্চ, ২০১৯ ১২:১৩:১৫
প্রিন্টঅ-অ+


আমাদের দৈনন্দিন জীবনে প্রয়োজন পড়ে অসংখ্য জিনিসের। ঘরে থাকা একই জিনিস আমরা হয়তো দীর্ঘ সময় ধরে ব্যবহার করি, যার মধ্যে কোনোটা হতে পারে অস্বাস্থ্যকর। তাই নির্দিষ্ট সময়ের পর কিছু জিনিস বদলে নেয়া জরুরি। চলুন জেনে নেয়া যাক-

বছরের পর বছর একই বালিশ ব্যবহার করবেন না। প্রতি ২-৩ বছর পর পর বালিশ বদলে ফেলুন বা বালিশের তুলো বদলে ফেলুন। আরামদায়ক ঘুম আসবে সহজেই।

৩-৪ মাস অন্তর টুথব্রাশ বদলে ফেলা উচিত।

গায়ে সাবান মাখার কাজে ব্যবহৃত স্পঞ্জ বা লুফা প্রতি ৩-৪ মাস অন্তর বদলে ফেলা প্রয়োজন। গোসলের সময় ব্যবহারের পর ভালো করে ধুয়ে রাখুন।

শিশুদের ব্যবহৃত ল্যাটেক্স পেসিফায়ার বা চুশি কখনোই ৩-৪ সপ্তাহের বেশি ব্যবহার করা উচিত নয়। প্রতিদিন অন্তত ২ বার ল্যাটেক্স পেসিফায়ার গরম পানিতে ভালো করে ধুয়ে নেওয়া জরুরি।

প্রতিদিন ব্যবহারের পর গামছা বা তোয়ালে ভালো করে ধুয়ে দিন। গামছা প্রতি ৬ মাস অন্তর আর দুই থেকে তিন বছর অন্তর তোয়ালে বদলে ফেলা উচিত।

ঘরে পরার স্যান্ডেল প্রতি ৬ মাস অন্তর বদলে ফেলা উচিত। মনে রাখবেন, খুব পাতলা বা শক্ত স্যান্ডেল আমাদের পায়ের জন্য ক্ষতিকর।

পারফিউমের বোতলের ঢাকনা যদি খুলে না ফেলা হয়, সেক্ষেত্রে সেটি ৩ বছর পর্যন্ত ঠিক থাকে। আর বোতলের ঢাকনা খুলে ফেলার পর বছর দুয়েক পর্যন্ত ভালো থাকে। তাই প্রতি দুই থেকে তিন বছর পর পর পারফিউম বদলে ফেলাই ভালো।

বেশিদিন থাকলে রান্নার মশলাপাতির স্বাদ বা গন্ধ নষ্ট হয়ে যায়। অনেকসময় তাতে ছত্রাকও জন্মে যায়। তাই বিশেষ করে গুঁড়া মশলা ৬ মাসের বেশি না রাখাই ভালো।



আমার বার্তা/০৯ মার্চ ২০১৯/জহির


আরো পড়ুন