শিরোনাম :

  • মধ্যরাত পর্যন্ত রুদ্ধদ্বার বৈঠক, শর্ত জুড়ে দিয়ে ধর্মঘট প্রত্যাহার আজ সশস্ত্রবাহিনী দিবস ওয়াটারফ্রন্ট স্মার্টসিটি হবে কেরানীগঞ্জে ছোট ভাই প্রেসিডেন্ট, বড় ভাই এবার প্রধানমন্ত্রী ৭ তলার জানালা দিয়ে উড়ে আসছে লাখ লাখ টাকা, কুড়োতে হুড়োহুড়ি
এরশাদের শারীরিক অবস্থা উন্নতির দিকে : জি এম কাদের
নিজস্ব প্রতিবেদক :
০৩ জুলাই, ২০১৯ ১৫:২৭:১৫
প্রিন্টঅ-অ+


জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের শারীরিক অবস্থা উন্নতির দিকে বলে জানিয়েছেন দলটির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান গোলাম মোহাম্মদ (জিএম) কাদের।

বুধবার রাজধানীর বনানীতে জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যানের কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ কথা জানান।

জি এম কাদের বলেন, চিকিৎসকরা আশা করছেন, আগামী দুই তিন দিনের মধ্যে তার শারীরিক অবস্থার আরও উন্নতি হবে। ফুসফুসের ইনফেকশন ক্রমে কমে আসায় নিঃশ্বাস প্রশ্বাস স্বাভাবিক হয়ে আসছে। এখন তার অবস্থা সন্তোষজনক। তবে চিকিৎসকরা এখনও শঙ্কামুক্ত বলছেন না। তাকে নিবিড় পর্যবেক্ষণে রেখেছেন।

জিএম কাদের বলেন, আমি আজ সকালে দলের চেয়ারম্যানকে দেখতে গিয়েছিলাম এবং তার হাত ধরেছিলাম, তখন তিনি চোখ মেলে তাকিয়েছেন। ভাব বিনিময় করেছেন।

তিনি বলেন, চেয়ারম্যানের কিছু সমস্যা কমেছে। যেমন। লাং ইনফেকশন কমেছে, কিডনির সমস্যার কারণে প্রস্রাব বন্ধ ছিল, তা সকাল থেক ক্লিয়ার হয়েছে, অর্থাৎ সার্বিক বিবেচনায় তার শরীরিক অবস্থার উন্নতি হয়েছে। তবে তিনি আশঙ্কা মুক্ত নন।

জাতীয় পার্টির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান বলেন, ‘বেলা ১১টায় এরশাদের কাছে গিয়ে তাকে আমি বলেছি, আপনার জন্য দেশবাসী দোয়া করছে।’

‘তিনি এখনও অক্সিজেন সাপোর্টে আছেন। ২ ঘণ্টা অক্সিজেন দেয়া হচ্ছে। আবার ২ ঘণ্টা আন্ডার পেশারে রাখা হচ্ছে এবং এটা আস্তে আস্তে কমানো হচ্ছে।’

গত ২৬ জুন সিএমএইচ ক্রিটিক্যাল কেয়ার ইউনিটে (সিসিইউ) নিবিড় পর্যবেক্ষণে নেয়া হয় এরশাদকে। এরপরের দিন জাপা মহাসচিব মসিউর রহমান রাঙ্গা বলেন, শারীরিক অবস্থা বিবেচনা-সাপেক্ষে বৃহস্পতিবার তাকে সিঙ্গাপুরে নেয়া হতে পারে।

সর্বশেষ গত ২০ জানুয়ারি সিঙ্গাপুরে চিকিৎসার জন্য যান এরশাদ। সেখান থেকে ফেরেন ৪ ফেব্রুয়ারি। একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের আগে অর্থাৎ ২০১৮ সালের ১০ ডিসেম্বর চিকিৎসার জন্য সে দেশে যান এরশাদ। ভোটের মাত্র তিনদিন আগে ২৬ ডিসেম্বর ফেরেন তিনি।



আমার বার্তা/০৩ জুলাই ২০১৯/জহির


আরো পড়ুন