শিরোনাম :

  • ২৪ ঘন্টায় হাসপাতালে ১৭০৬ ডেঙ্গু রোগী দেশে ফিরেছেন ৭৯৮২ হাজি আরও এক বাংলাদেশি হাজির মৃত্যু নিষিদ্ধই হলেন শাহজাদ জঙ্গি সংগঠন ‘আল্লাহ’র দলের ভারপ্রাপ্ত আমিরসহ আটক ৪
বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের প্রথম অধিনায়ক শামীম কবির আর নেই
স্পোর্টস ডেস্ক :
২৯ জুলাই, ২০১৯ ১১:৪২:১৬
প্রিন্টঅ-অ+


স্বাধীন বাংলাদেশের অভ্যুদয়ের পর জাতীয় ক্রিকেট দল ১৯৭৭ সালে প্রথম খেলেছিল দেশের মাটিতে ইংল্যান্ডের বিখ্যাত এমসিসি (মেরিলিবোর্ন ক্রিকেট ক্লাব) ক্লাবের বিপক্ষে। নিঃসন্দেহে ঐতিহাসিক একটি দিন। সেই ঐতিহাসিক ম্যাচে বাংলাদেশের প্রথম জাতীয় ক্রিকেট দলকে নেতৃত্ব দিয়েছিলেন ওপেনিং ব্যাটসম্যান শামীম কবির।

বাংলাদেশের ক্রিকেট যার হাত ধরে ২২ গজে প্রথম পদক্ষেপ ফেলেছিল, সেই শামীম কবির আর নেই। আজ সকালে পৃথিবীর মায়া কাটিয়ে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেছেন তিনি, (ইন্নালিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)। তার মৃত্যুতে শোকের ছায়া নেমে এসেছে ক্রীড়াঙ্গনে।

১৯৭৭ সালে বাংলাদেশের প্রথম জাতীয় দল দেশের মাটিতে খেলেছিল ইংল্যান্ড থেকে সফরে আসা সম্ভ্রান্ত ক্লাব এমসিসিরি বিপক্ষে। সেই দলের অধিনায়ক করা হয়েছিল শামীম কবিরকে। ৭ জানুয়ারি ঢাকা স্টেডিয়ামে (বর্তমানে বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়াম) বাংলাদেশ ক্রিকেট দল ৩ দিনের একটি বেসরকারি টেস্টে মুখোমুখি হয়েছিল ক্লার্কের নেতৃত্বাধীন ইংল্যান্ডের শক্তিশালী এমসিসি ক্রিকেট দলের।

এমসিসির বিপক্ষে ওই ম্যাচটি মূলতঃ বাংলাদেশের সামর্থ্য যাচাইয়ের জন্য আয়োজন করা হয়। আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে বাংলাদেশ অংশগ্রহণের যোগ্য কি-না, সেটাই পরীক্ষা করার জন্য অনুষ্ঠিত হয়েছিল ওই ম্যাচ।

শামীম কবির নামে পরিচিতি পেলেও বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দলের প্রথম অধিনায়কের মূল নাম আনোয়ারুল কবির। জন্ম ১৯৪৫ সালে, নরসিংদীর বনেদি জমিদার পরিবারে।

পূর্ব পাকিস্তানের হয়ে প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে অভিষেক হয় তার ১৯৬১ সালে। প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে প্রথম ফিফটি (৬৪) করেন ১৯৬৪ সালে, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের হয়ে পিআইএর বিপক্ষে। তবে প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে শামীম কবিরের সর্বোচ্চ ইনিংস হচ্ছে ৮৯ রান। পূর্ব পাকিস্তান সবুজ দলের হয়ে পূর্ব পাকিস্তান রেলওয়ের বিপক্ষে তিনি এই ইনিংসটি খেলেছিলেন।

ঢাকার ক্লাব ক্রিকেটে শামীম কবির খেলেছিলেন আজাদ বয়েজ ক্লাবের হয়ে। শুধু খেলোয়াড় হিসেবেই তার ক্রিকেট জীবন সীমাবদ্ধ ছিল না। খেলোয়াড়ি জীবন ছাড়ার পর তিনি ক্রিকেটকে এগিয়ে নিতে সম্পৃক্ত হন বিসিবিতে। ১৯৮২ ও ১৯৮৬ সালের আইসিসি ট্রফিতে পালন করেন বাংলাদেশ দলের ম্যানেজারের দায়িত্ব। ক্রীড়াঙ্গনে অবদানের স্বীকৃতি হিসেবে ১৯৯৯ সালে তিনি জাতীয় ক্রীড়া পুরস্কারও লাভ করেন।



আমার বার্তা/২৯ জুলাই ২০১৯/জহির


আরো পড়ুন