শিরোনাম :

  • বুড়িগঙ্গায় লঞ্চডুবির ঘটনায় ময়ূর-২ এর মালিক গ্রেফতার দেশের ১৯ অঞ্চলে ঝড়-বৃষ্টি হতে পারে আজ প্রাথমিকের ৪৯৩ জন করোনায় আক্রান্ত, মৃত্যু ১২ জনের আরও ১৫৯ বাংলাদেশি কাতার থেকে দেশে ফিরলেন
গান্ধী-বাজপেয়ীকে শ্রদ্ধা জানিয়ে শপথের দিন শুরু মোদির
আন্তর্জাতিক ডেস্ক :
৩০ মে, ২০১৯ ১৩:১৯:৪২
প্রিন্টঅ-অ+


দ্বিতীয়বারের মতো ভারতের প্রধানমন্ত্রী হিসেবে আজ বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় শপথ নেবেন নরেন্দ্র মোদি। বিশেষ এ দিনটি তিনি মহাত্মা গান্ধী, অটলবিহারী বাজপেয়ীসহ দেশের সকল শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে শুরু করেছেন।

আজ সকাল ৭টায় দিল্লির রাজঘাটে যান মোদি। সেখানে অবস্থিত মহাত্মা গান্ধীর সমাধিতে শ্রদ্ধা জানান। শ্রদ্ধা শেষে গান্ধী মেমোরিয়াল পরিদর্শন করেন। এরপর যান ভারতের প্রয়াত প্রধানমন্ত্রী অটল বিহারী বাজপেয়ীর সমাধিতে। সেখান থেকে দিল্লির ইন্ডিয়া গেটের কাছে ন্যাশনাল ওয়ার মেমোরিয়ালে যান মোদি। বিভিন্ন যুদ্ধে নিহত সৈন্যদের প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন ও স্যালুট জানান তিনি। এ সময় অমিত শাহ, রবিশঙ্কর প্রসাদ, মেনকা গান্ধী, স্মৃতি ইরানি, জেপি নাড্ডাসহ বিজেপির উচ্চপর্যায়ের নেতা-মন্ত্রীরা উপস্থিত ছিলেন।

ভারতীয় সংবাদ মাধ্যমের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, মোদির শপথ অনুষ্ঠানে ৮ হাজারেরও বেশি অতিথি আমন্ত্রণ করা হয়েছে। অনুষ্ঠানে উপস্থিত থাকবেন বাংলাদেশ, মিয়ানমার, শ্রীলঙ্কা, তাইল্যান্ড, নেপাল, ভুটান— বিমস্টেকের সব দেশের প্রতিনিধিরা। ভুটানের প্রধানমন্ত্রী লোটে শেরিং এবং মরিশাসের প্রধানমন্ত্রী দিল্লি বিমানবন্দরে এসে পৌঁছেছেন। সকালে ভারতের বিদেশ সচিব বিজয় গোখলে বিমানবন্দরে তাদের স্বাগত জানান।

ভারতের সব রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী, প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি, বিদেশি রাষ্ট্রনেতা, হবু মন্ত্রী ও তাদের পরিবারের ১০ জন করে সদস্য, সমস্ত নতুন সাংসদও মোদির শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠানে দাওয়াত পেয়েছেন। অতিথির তালিকায় রয়েছেন আরএসএস নেতা, শিক্ষাবিদ, চিত্রতারকারাও।

তবে মোদির শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠানে যোগদানের কথা থাকলেও এখন আর যাবেন না বলে জানিয়েছেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। পশ্চিমবঙ্গে নির্বাচনী সহিংসতায় বিজেপির ৫৪ কর্মী নিহত হয়েছে বলে দাবি করেছে দলটি। বিজেপির এই দাবির পর মোদির শপথে অংশ নেবেন না জানিয়ে এক টুইট বার্তায় মমতা বলেন, দয়া করে আমাকে ক্ষমা করবেন। বিজেপি যে দাবি করেছে সেটি মিথ্যা।

এর আগে মঙ্গলবার (২৮ মে) নয়াদিল্লিতে নরেন্দ্র মোদির শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠানে থাকবেন বলে জানিয়েছিলেন মমতা। তিনি বলেছিলেন, সাংবিধানিক সৌজন্যতা রক্ষা করতেই মোদির শপথের আমন্ত্রণ গ্রহণ করেন তিনি। রাজনৈতিক ফায়দা লোটার জন্য অন্য রাজনৈতিক দলকে হেয় করা উচিৎ নয়।

তার যোগদান না করার সিদ্ধান্তকে কটাক্ষ করে বিজেপি নেতা মনোজ তিওয়ারি বলেছেন, তার (মমতা) আসাও উচিৎ নয়। গণতন্ত্রকে খুন করে যেভাবে তিনি হিংসা প্রতিষ্ঠা করেছেন, তারপর এ রকম একটা অনুষ্ঠানে তিনি নিজের মুখ দেখাবেন কী করে?

উল্লেখ্য, বিজেপি নেতৃত্বাধীন এনডিএ লোকসভা নির্বাচনে বিপুল ভোটে জয়লাভ করে। ৫৪৫টি আসনের মধ্যে ৩৫২টি পায় বিজেপি। সম্ভাব্য নতুন মন্ত্রী কারা, সে বিষয়ে গোপনীয়তা বজায় রাখা হয়েছে। তবে মোদি ও তার সহকারী অমিত শাহ একঝাঁক নতুন মুখকে মন্ত্রী হিসেবে বেছে নেবেন বলে ধারণা করা হচ্ছে।



আমার বার্তা/৩০ মে ২০১৯/জহির


আরো পড়ুন