শিরোনাম :

  • মধ্যরাত পর্যন্ত রুদ্ধদ্বার বৈঠক, শর্ত জুড়ে দিয়ে ধর্মঘট প্রত্যাহার আজ সশস্ত্রবাহিনী দিবস ওয়াটারফ্রন্ট স্মার্টসিটি হবে কেরানীগঞ্জে ছোট ভাই প্রেসিডেন্ট, বড় ভাই এবার প্রধানমন্ত্রী ৭ তলার জানালা দিয়ে উড়ে আসছে লাখ লাখ টাকা, কুড়োতে হুড়োহুড়ি
ইউরেনিয়াম সমৃদ্ধ করতে পারবে না ইরান : মাইক পম্পেও
আন্তর্জাতিক ডেস্ক :
০২ জুলাই, ২০১৯ ১২:৩১:৫৪
প্রিন্টঅ-অ+


মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী মাইক পম্পেও আন্তর্জাতিক আইন ও পরমাণু সমঝোতার সঙ্গে সাংঘর্ষিক বক্তব্য দিয়ে বলেছেন, ইরানের কাছ থেকে ইউরেনিয়াম সমৃদ্ধ করার অধিকার কেড়ে নিতে হবে। পরমাণু সমঝোতা থেকে যুক্তরাষ্ট্রের বেরিয়ে যাওয়া এবং ইউরোপের পক্ষ থেকে এ সমঝোতা বাস্তবায়ন না করার প্রতিবাদে ইরান সমৃদ্ধ ইউরেনিয়ামের মজুত নির্ধারিত সীমার চেয়ে বেশি করার ঘোষণা দেয়ার পর পম্পেও এই প্রতিক্রিয়া জানালেন।

সোমবার রাতে পম্পেও দাবি করেন যে, ইরান এই পদক্ষেপের মাধ্যমে পরমাণু সমঝোতা লঙ্ঘন করেছে। কাজেই ইরান যাতে ইউরেনিয়াম সমৃদ্ধকরণের কাজ পুরোপুরি বন্ধ করতে বাধ্য হয় সেই ব্যবস্থাই নিতে হবে।

যুক্তরাষ্ট্র যে পরমাণু সমঝোতা থেকে বেরিয়ে গেছে এবং ইউরোপীয় দেশগুলো যে তাদের প্রতিশ্রুতি রক্ষা করছে না সে প্রসঙ্গ এড়িয়ে গেছেন পম্পেও। তিনি বলেন, কোনো ধরনের পরমাণু সমঝোতায় ইরানকে বিন্দুমাত্র ইউরেনিয়াম সমৃদ্ধ করার অনুমতি দেয়া উচিত হবে না।

মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ইরান যতদিন যুক্তরাষ্ট্রের আলোচনার প্রস্তাবে সাড়া না দেবে এবং নিজের পরমাণু কর্মসূচি চালিয়ে যাবে ততদিন ওয়াশিংটন তেহরানের ওপর চাপ প্রয়োগ ও নিষেধাজ্ঞা আরোপ করে যাবে।

মার্কিন পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের ইরানবিষয়ক বিশেষ প্রতিনিধি ব্রায়ান হুক সম্প্রতি এক বক্তৃতায় দাবি করেছিলেন, তেহরানের উচিত মার্কিন কূটনীতির জবাব কূটনীতির মাধ্যমে দেয়া। পর্যবেক্ষকরা বলছেন, ইরানের পরমাণু সমঝোতা থেকে যুক্তরাষ্ট্রের বেরিয়ে যাওয়া, নিষেধাজ্ঞা আরোপ ও অন্যায়ভাবে চাপ প্রয়োগকে ব্রায়ান হুক কূটনীতি বোঝাতে চেয়েছেন।

যুক্তরাষ্ট্র এমন সময় ইরানের ইউরেনিয়াম সমৃদ্ধকরণের অধিকার কেড়ে নিতে চায় যখন তেহরান ইউরেনিয়াম সমৃদ্ধ করাকে নিজের অকাট্য অধিকার মনে করে। ইরান বলে আসছে, পরমাণু অস্ত্র তৈরির কোনো অভিপ্রায় তাদের নেই তবে শান্তিপূর্ণ কাজে পরমাণু শক্তির ব্যবহার চালিয়ে যাবে তেহরান।



আমার বার্তা/০২ জুলাই ২০১৯/জহির


আরো পড়ুন