শিরোনাম :

  • ত্রাণ তহবিলে দানের আহ্বান ঢাকা উত্তর সিটি মেয়রের প্রধানমন্ত্রীর কল্যাণ তহবিলে একদিনের বেতন দিল কোস্টগার্ড প্রধানমন্ত্রীর তহবিলে ভূমি মন্ত্রণালয়ের কর্মচারীদের ১৫ লাখ টাকা তুর্কি সরকারের বিরুদ্ধে ২৮৮ দিনের অনশনে গায়িকার মৃত্যু
করোনাভাইরাস : ৯০ শতাংশের বেশি মৃত্যু চীনের হুবেই প্রদেশে
আন্তর্জাতিক ডেস্ক :
০২ মার্চ, ২০২০ ১০:৫৩:৫১
প্রিন্টঅ-অ+


করোনাভাইরাসে এ পর্যন্ত বিশ্বব্যাপী যত মানুষ মারা গেছে তার মধ্যে ৯০ শতাংশর বেশি মৃত্যুর ঘটনা ঘটেছে চীনের হুবেই প্রদেশে। এদিকে, চীনে নতুন করে আরও ৪২ জনের মৃত্যু হয়েছে।

গত ৩১ ডিসেম্বর চীনের হুবেই প্রদেশেই প্রথম করোনাভাইরাসের উপস্থিতি ধরা পড়ে। এরপর থেকেই চীনের বিভিন্ন স্থানসহ বিশ্বের ৬০টিরও বেশি দেশে এই ভাইরাসের প্রকোপ ছড়িয়ে পড়েছে।

চীনের বাইরে ১০টি দেশে করোনায় মৃত্যুর ঘটনা ঘটেছে। এর মধ্যে ৫০ জনের বেশি মানুষের মৃত্যু হয়েছে ইরানে এবং ৩০ জনের বেশি মারা গেছে ইতালিতে।

বিশ্বব্যাপী প্রায় ৯০ হাজার মানুষ এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে। অপরদিকে মারা গেছে ৩ হাজার ৫৩ জন। প্রথমদিকে চীনের ভেতরেই এই ভাইরাসের প্রকোপ ছড়িয়ে পড়লেও এখন চীনের বাইরে আক্রান্তের সংখ্যা বাড়ছে।

শুধুমাত্র চীনের মূল ভূখণ্ডেই এখন পর্যন্ত ৮০ হাজার ২৬ জন এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে। অপরদিকে মারা গেছে ২ হাজার ৯১২ জন।

চীনের বাইরে সবচেয়ে বেশি আক্রান্তের ঘটনা দক্ষিণ কোরিয়ায়। সেখানে এখন পর্যন্ত আক্রান্তের সংখ্যা ৪ হাজার ২১২। অপরদিকে দেশটিতে করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছে ২২ জন।

চীনের মূল ভূখণ্ডের বাইরে করোনায় আক্রান্ত হয়ে সবচেয়ে বেশি মৃত্যুর ঘটনা ইরানে। সেখানে এখন পর্যন্ত ৫৪ জনের মৃত্যু হয়েছে। অপরদিকে করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা ৯৭৮।

এদিকে, জাপানে নোঙ্গর করা প্রমোদতরী ডায়মন্ড প্রিন্সেসের ৭০৫ যাত্রী করোনায় আক্রান্ত হয়েছে এবং মারা গেছে ৬ জন। অপরদিকে, জাপানে ২৫৬ জন এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে এবং ৬ জনের মৃত্যু হয়েছে।

ফ্রান্সে ১৩০ জন করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে এবং মারা গেছে ২ জন, সিঙ্গাপুরে এই ভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা ১০৬, হংকংয়ে আক্রান্তের সংখ্যা ৯৮ এবং মৃত্যু ২, স্পেনে আক্রান্তের সংখ্যা ৮৩, যুক্তরাষ্ট্রে আক্রান্তের সংখ্যা ৭৪, মৃত্যু ২, জার্মানিতে আক্রান্তের সংখ্যা ৬৬।

অপরদিকে, কুয়েতে এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে ৪৫ জন, থাইল্যান্ডে আক্রান্ত ৪২, মৃত্যু ১, তাইওয়ানে আক্রান্ত ৪০, মৃত্যু ১, বাহরাইনে আক্রান্ত ৩৮, যুক্তরাজ্যে আক্রান্ত ৩৫, অস্ট্রেলিয়ায় আক্রান্ত ২৯ এবং মৃত্যু ১, মালয়েশিয়ায় আক্রান্ত ২৯, আরব আমিরাতে আক্রান্তের সংখ্যা ২১।

এছাড়া কানাডায় আক্রান্তের সংখ্যা ২০, ইরাকে ১৯, নরওয়েতে ১৯, ভিয়েতনামে ১৬, সুইডেনে ১৫, ম্যাকাউতে ১০, নেদারল্যান্ডসে ১০, সুইজারল্যান্ডে ১০, ক্রোয়েশিয়ায় ৭, গ্রিসে ৭, লেবাননে ৭, ইকুয়েডরে ৬, ফিনল্যান্ডে ৬, ওমানে ৬, অস্ট্রিয়ায় ৫, ইসরায়েলে ৫, রাশিয়ায় ৫, মেক্সিকোতে ৪ এবং পাকিস্তানে ৪ জন এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে।

এদিকে ফিলিপাইনে এই ভাইরাসে তিনজন আক্রান্ত হয়েছে এবং একজনের মৃত্যু হয়েছে। চেক রিপাবলিকে আক্রান্তের সংখ্যা ৩, ভারতে ৩, রোমানিয়ায় ৩, বেলারুসে ২, বেলজিয়ামে ২, ব্রাজিলে ২, ডেনমার্কে ২, জর্জিয়ায় ২, আফগানিস্তানে ১, আলজেরিয়ায় ১, আর্মেনিয়ায় ১, আজারবাইজানে ১, কম্বোডিয়ায় ১, মিসরে ১, এস্তোনিয়ায় ১, আইসল্যান্ডে ১, আয়ারল্যান্ডে ১, লিথুনিয়ায় ১, লুক্সেমবার্গে ১, মোনাকোতে ১, নেপালে ১, নিউজিল্যান্ডে ১, নাইজেরিয়ায় ১, উত্তর মেসিডোনিয়ায় ১, কাতারে ১, সান মেরিনোতে ১ এবং শ্রীলঙ্কায় ১।করোনাভাইরাসে এ পর্যন্ত বিশ্বব্যাপী যত মানুষ মারা গেছে তার মধ্যে ৯০ শতাংশর বেশি মৃত্যুর ঘটনা ঘটেছে চীনের হুবেই প্রদেশে। এদিকে, চীনে নতুন করে আরও ৪২ জনের মৃত্যু হয়েছে।

গত ৩১ ডিসেম্বর চীনের হুবেই প্রদেশেই প্রথম করোনাভাইরাসের উপস্থিতি ধরা পড়ে। এরপর থেকেই চীনের বিভিন্ন স্থানসহ বিশ্বের ৬০টিরও বেশি দেশে এই ভাইরাসের প্রকোপ ছড়িয়ে পড়েছে।

চীনের বাইরে ১০টি দেশে করোনায় মৃত্যুর ঘটনা ঘটেছে। এর মধ্যে ৫০ জনের বেশি মানুষের মৃত্যু হয়েছে ইরানে এবং ৩০ জনের বেশি মারা গেছে ইতালিতে।

বিশ্বব্যাপী প্রায় ৯০ হাজার মানুষ এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে। অপরদিকে মারা গেছে ৩ হাজার ৫৩ জন। প্রথমদিকে চীনের ভেতরেই এই ভাইরাসের প্রকোপ ছড়িয়ে পড়লেও এখন চীনের বাইরে আক্রান্তের সংখ্যা বাড়ছে।

শুধুমাত্র চীনের মূল ভূখণ্ডেই এখন পর্যন্ত ৮০ হাজার ২৬ জন এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে। অপরদিকে মারা গেছে ২ হাজার ৯১২ জন।

চীনের বাইরে সবচেয়ে বেশি আক্রান্তের ঘটনা দক্ষিণ কোরিয়ায়। সেখানে এখন পর্যন্ত আক্রান্তের সংখ্যা ৪ হাজার ২১২। অপরদিকে দেশটিতে করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছে ২২ জন।

চীনের মূল ভূখণ্ডের বাইরে করোনায় আক্রান্ত হয়ে সবচেয়ে বেশি মৃত্যুর ঘটনা ইরানে। সেখানে এখন পর্যন্ত ৫৪ জনের মৃত্যু হয়েছে। অপরদিকে করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা ৯৭৮।

এদিকে, জাপানে নোঙ্গর করা প্রমোদতরী ডায়মন্ড প্রিন্সেসের ৭০৫ যাত্রী করোনায় আক্রান্ত হয়েছে এবং মারা গেছে ৬ জন। অপরদিকে, জাপানে ২৫৬ জন এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে এবং ৬ জনের মৃত্যু হয়েছে।

ফ্রান্সে ১৩০ জন করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে এবং মারা গেছে ২ জন, সিঙ্গাপুরে এই ভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা ১০৬, হংকংয়ে আক্রান্তের সংখ্যা ৯৮ এবং মৃত্যু ২, স্পেনে আক্রান্তের সংখ্যা ৮৩, যুক্তরাষ্ট্রে আক্রান্তের সংখ্যা ৭৪, মৃত্যু ২, জার্মানিতে আক্রান্তের সংখ্যা ৬৬।

অপরদিকে, কুয়েতে এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে ৪৫ জন, থাইল্যান্ডে আক্রান্ত ৪২, মৃত্যু ১, তাইওয়ানে আক্রান্ত ৪০, মৃত্যু ১, বাহরাইনে আক্রান্ত ৩৮, যুক্তরাজ্যে আক্রান্ত ৩৫, অস্ট্রেলিয়ায় আক্রান্ত ২৯ এবং মৃত্যু ১, মালয়েশিয়ায় আক্রান্ত ২৯, আরব আমিরাতে আক্রান্তের সংখ্যা ২১।

এছাড়া কানাডায় আক্রান্তের সংখ্যা ২০, ইরাকে ১৯, নরওয়েতে ১৯, ভিয়েতনামে ১৬, সুইডেনে ১৫, ম্যাকাউতে ১০, নেদারল্যান্ডসে ১০, সুইজারল্যান্ডে ১০, ক্রোয়েশিয়ায় ৭, গ্রিসে ৭, লেবাননে ৭, ইকুয়েডরে ৬, ফিনল্যান্ডে ৬, ওমানে ৬, অস্ট্রিয়ায় ৫, ইসরায়েলে ৫, রাশিয়ায় ৫, মেক্সিকোতে ৪ এবং পাকিস্তানে ৪ জন এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে।

এদিকে ফিলিপাইনে এই ভাইরাসে তিনজন আক্রান্ত হয়েছে এবং একজনের মৃত্যু হয়েছে। চেক রিপাবলিকে আক্রান্তের সংখ্যা ৩, ভারতে ৩, রোমানিয়ায় ৩, বেলারুসে ২, বেলজিয়ামে ২, ব্রাজিলে ২, ডেনমার্কে ২, জর্জিয়ায় ২, আফগানিস্তানে ১, আলজেরিয়ায় ১, আর্মেনিয়ায় ১, আজারবাইজানে ১, কম্বোডিয়ায় ১, মিসরে ১, এস্তোনিয়ায় ১, আইসল্যান্ডে ১, আয়ারল্যান্ডে ১, লিথুনিয়ায় ১, লুক্সেমবার্গে ১, মোনাকোতে ১, নেপালে ১, নিউজিল্যান্ডে ১, নাইজেরিয়ায় ১, উত্তর মেসিডোনিয়ায় ১, কাতারে ১, সান মেরিনোতে ১ এবং শ্রীলঙ্কায় ১।



আমার বার্তা/০২ মার্চ ২০২০/জহির


আরো পড়ুন