শিরোনাম :

  • প্রধানমন্ত্রী রাতে দেশে ফিরবেন পদ্মা সেতুর আড়াই কিলোমিটার দৃশ্যমান হচ্ছে আজ যুক্তরাষ্ট্রে ওয়ালমার্টের বাইরে গোলাগুলিতে নিহত ৩ আজ বিমানে পেঁয়াজ আসছে ইডেনে যে বিষয়টাতে বেশি ভয় পাচ্ছেন মিরাজ
বিশ্বায়নের যুগে নগরের ওপর চাপ বাড়ছে : স্পিকার
নিজস্ব প্রতিবেদক :
০৩ নভেম্বর, ২০১৯ ১৭:৩৩:৪৬
প্রিন্টঅ-অ+


স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী বলেছেন, নাগরিকদের জীবন মান উন্নয়নে স্থপতিরা গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখতে পারেন।

বিশ্বায়নের এ যুগে নগরের ওপর চাপ বাড়ছে উল্লেখ করে তিনি বলেন, দ্রুত পরিবর্তনশীল নাগরিক জীবনে পরিবেশ, দুর্যোগ ও জলবায়ু পরিবর্তন মোকাবিলায় স্থপতিদের উদ্ভাবনী সক্ষমতার মাধ্যমে চ্যালেঞ্জ মোকাবিলা করতে হবে। এ সময় তিনি পরিবেশবান্ধব নাগরিক সুবিধা নিশ্চিতে স্থপতিদের এগিয়ে আসার আহ্বান জানান।

রোববার (৩ নভেম্বর) বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে বাংলাদেশ স্থপতি ইনস্টিটিউটের আয়োজনে স্থপতিদের পাঁচ দিনব্যাপী মিলনমেলা ‘আর্কএশিয়া ২০ ফোরাম’ এর উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে স্পিকার এ কথা বলেন।

এবারের সম্মেলনের প্রতিপাদ্য ‘আর্কিটেকচার ইন এ চেঞ্জিং ল্যান্ডস্কেপ’। অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন পূর্তমন্ত্রী শ ম রেজাউল করিম ও আর্কএশিয়ার প্রেসিডেন্ট সিঙ্গাপুরের স্থপতি রিতা সো। অন্যদের মধ্যে আয়োজনের উপদেষ্টা স্থপতি মোবাশ্বের হোসেন, স্থপতি ইনস্টিটিউটের সহ-সভাপতি এহসান খান, সহ-সভাপতি স্থপতি মামনুন মুর্শেদ চৌধুরী, সাধারণ সম্পাদক স্থপতি নওয়াজীশ মাহবুব এবং প্রধান স্থপতি কাজী গোলাম নাসির বক্তব্য রাখেন। অনুষ্ঠানে দেশ ও বিদেশের স্থপতিগণ অংশ নিচ্ছেন।

স্পিকার বলেন, বর্তমান সরকারের অন্যতম অগ্রাধিকার কর্মসূচির মধ্যে রয়েছে ‘গ্রাম হবে শহর’। গ্রামে শহরের সুযোগ সুবিধা পৌঁছে দিতে বর্তমান সরকার কাজ করছে।

তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশ ইতোমধ্যে স্বল্পোন্নত দেশ থেকে উন্নয়নশীল দেশে উন্নীত হয়েছে। ২০২৪ সালে পুরোপুরি উন্নয়নশীল এবং ২০৪১ সালে উন্নত সমৃদ্ধ দেশে পরিণত হবে বলে আশা প্রকাশ করেন তিনি।

স্পিকার বলেন, বাংলাদেশের রয়েছে সমৃদ্ধ সাংস্কৃতিক ঐতিহ্য। ঢাকা শহরসহ সারা দেশে অসংখ্য নান্দনিক স্থাপনা রয়েছে। রয়েছে লুই আই কান নির্মিত অনন্য স্থাপত্য শৈলীর জাতীয় সংসদ ভবন—যা পৃথিবীর সর্ব বৃহৎ আইন প্রনয়ন বিভাগের স্থাপনা। এ সময় তিনি আগত অতিথিদের বাংলাদেশের নান্দনিক স্থাপত্য শৈলী উপভোগ করার আহ্বান জানান।

উল্লেখ্য, আর্কএশিয়া (আর্কিটেক্ট রিজিওনাল কাউন্সিল এশিয়া) এশিয়ার ২১টি দেশের স্থপতিদের শীর্ষ সংগঠন। প্রতিবছর সংগঠনের যে সম্মেলন হয়, এ বছর সেটি বাংলাদেশে হচ্ছে। এশিয়ার ২১টি দেশের দুই শতাধিক প্রতিনিধি ছাড়াও প্রায় দেড় হাজার স্থপতি এ সম্মেলনে যোগ দিয়েছেন।

সম্মেলনের মূল আয়োজন আগারগাঁওয়ের বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে। এর বাইরে মানিক মিয়া এভিনিউ, হাতিরঝিল, জিন্দা পার্ক এবং সোনারগাঁওয়ের ঐতিহাসিক পানাম নগরে সম্মেলনের বিভিন্ন আয়োজন থাকছে। এ আয়োজন ঘিরে ৩-৫ নভেম্বর বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্র প্রাঙ্গণে নির্মাণ মেলার পাশাপাশি থাকবে আর্কএশিয়া ও আগা খান স্থাপত্য পুরস্কার প্রাপ্ত ডিজাইনের প্রদর্শনী এবং সোশ্যাল রেসপনসিবিলিটি ও গ্রিন অ্যান্ড সাসটেইনেবল আর্কিটেকচার শীর্ষক প্রদর্শনী।



আমার বার্তা/০৩ নভেম্বর ২০১৯/জহির


আরো পড়ুন