শিরোনাম :

  • বিমানের সিটের হাতলে মিলল ২৪ কেজি স্বর্ণ কবি নজরুলের পুত্রবধূ উমা কাজী মারা গেছেন ২০২১ সালের কলকাতার বইমেলা বঙ্গবন্ধুকে উৎসর্গ করা হবে ২ ইরানি কূটনীতিককে আলবেনিয়া ছাড়ার নির্দেশ
আজকের নবীন কর্মকর্তারাই হবেন ৪১ সালের সৈনিক : প্রধানমন্ত্রী
নিজস্ব প্রতিবেদক :
১২ ডিসেম্বর, ২০১৯ ১৪:৫৩:০৫
প্রিন্টঅ-অ+


বিসিএস প্রশাসনের নবীন কর্মকর্তাদের উদ্দেশ্যে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, আজকের নবীন কর্মকর্তারাই হবেন ৪১ সালের সৈনিক। তারাই ৪১ সালের মধ্যে বাংলাদেশকে উন্নত সমৃদ্ধ দেশে পরিণত করবেন।

বৃহস্পতিবার বাংলাদেশ সিভিল সার্ভিস প্রশাসন একাডেমিতে ১১৩, ১১৪ ও ১১৫ তম আইন ও প্রশাসন কোর্সের সনদ বিতরণ ও সমাপনী অনুষ্ঠানে এ কথা বলেন তিনি।

শেখ হাসিনা বলেন, মিতব্যয়িতা, সুষ্ঠু পরিকল্পনা ও দেশপ্রেমে উদ্বুদ্ধ হয়ে কাজ করলেই দেশ এগিয়ে যাবে।

ঘুষ, সন্ত্রাস, দুনীতি, জঙ্গিবাদ, চাঁদাবাজ ও মাদকের বিরুদ্ধে অভিযান অব্যাহত রাখতে সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাদের নির্দেশ দেন তিনি।

প্রধানমন্ত্রী নবীন কর্মকর্তাদের উদ্দেশ্যে আরও বলেন, আপনারা আজ যে শপথ নিলেন। কর্মক্ষেত্রে এ শপথের কথাগুলো যথাযথ প্রয়োগ করবেন। সততা ও নিষ্ঠার সঙ্গে দায়িত্ব পালন করবেন, তাহলেই দেশ এগিয়ে যাবে। মনে রাখবেন সততা আপনার সবচেয়ে বড় সম্পদ। প্রশাসনে দায়িত্ব পালনকালে ঘুষ, দুর্নীতি সম্পর্কে সজাগ থাকবেন। আপনারা যারা প্রশাসন পরিচালনা করবেন, এই আপনারা সৎ থাকলে দেশ দ্রুত এগিয়ে যাবে।

তিনি বলেন, আমি বিশ্বাস করি একজন অফিসার সততার সঙ্গে সুষ্ঠু পরিকল্পনা নিয়ে কাজ করলে একটি জেলা এবং একটি ইউনিয়নের চেহারা পাল্টে দিতে পারেন। আপনারা ভালোভাবে কাজ করলে লাভবান হবে দেশের জনগণ। ঘুষ দুর্নীতি সমাজকে ধ্বংস করে দেয়, এ কথা মাথায় রেখে কাজ করবেন।

বেতন ও সুযোগ সুবিধার কথা উল্লেখ করে শেখ হাসিনা বলেন, সরকারি কর্মকর্তাদের এখন আর দিন আনি দিন খাই অবস্থা নেই। বেতন বৃদ্ধি, গাড়ি, ফ্লাটের জন্য লোনসহ অনেক সুযোগ-সুবিধা দিয়েছি। একজন অফিসারের পরিবার যেন ভালোভাবে সচ্ছলভাবে চলতে পারে সে ব্যবস্থা করেছি। এসবের উদ্দেশ্য হলো- আমি বেশি বেশি কাজ চাই। যারা ভালো কাজ করবেন তাদের জন্য পুরস্কারের ব্যবস্থাও করা হয়েছে। ভালো কাজ করলে তার স্বীকৃতি পাবেন। প্রমোশনের দ্বার উন্মুক্ত করে দেয়া হয়েছে।

বাংলাদেশ সিভিল সার্ভিস প্রশাসন একাডেমি শাহবাগে এ অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন সচিব ফয়েজ আহমদ। বিশেষ অতিথির বত্তব্য দেন জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী ফরহাদ হোসেন, জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় সংক্রান্ত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি এইচ এন আশিকুর রহমান।

স্বাগত বক্তব্য দেন রেক্টর বিসিএস প্রশাসন, কাজী রওশন আক্তার। অনুভূতি ব্যক্ত করে বক্তব্য দেন প্রশিক্ষণার্থী ফরাসউদ্দিন এনাম, তরিকুল ইসলাম ও রাহুল চন্দ্র।



আমার বার্তা/১২ ডিসেম্বর ২০১৯/জহির


আরো পড়ুন