শিরোনাম :

  • জাতিসংঘের মাদকদ্রব্য বিষয়ক কমিশনের সদস্য হলো বাংলাদেশখালেদা জিয়ার সঙ্গে বাবুনগরীর কোনোদিন দেখা হয়নি : হেফাজত চট্টগ্রামে একদিনে আরও ৫ জনের মৃত্যু, শনাক্ত ২৮৭মধ্যরাতে হেফাজতের সহকারী মহাসচিব আতাউল্লাহ গ্রেফতারহেফাজত নেতাদের মুক্তি দাবি মান্নার
পুলিশের লাঠিচার্জ হোম ইকোনমিক্সের শিক্ষার্থীদের ওপর
২৫ ফেব্রুয়ারি, ২০২১ ১৫:৫৯:০৫
প্রিন্টঅ-অ+






পরীক্ষার দাবিতে সড়ক অবরোধ করা রাজধানীর কলেজ অব হোম ইকোনমিক্স কলেজের শিক্ষার্থীদের ওপর লাঠিচার্জ করেছে পুলিশ। পরীক্ষার দাবিতে বৃহস্পতিবার (২৫ ফেব্রুয়ারি) বেলা ১১টায় শিক্ষার্থীরা রাস্তা অবরোধ করেন। পরে দুপুর ১২টায় শিক্ষার্থীদের ওপর লাঠিচার্জ করে পুলিশ। পরে শিক্ষার্থীরা কলেজের মূল গেটের ভেতরে অবস্থান নিয়ে আন্দোলন চালিয়ে যান।



আন্দোলনরত শিক্ষার্থীরা জানান, আজ তাদের পরীক্ষা শুরুর কথা থাকলেও হাঠাৎ তা স্থগিত করা হয়।



হোম ইকোনমিক্স কলেজের শিক্ষার্থী তাসনুবা আতিক বলেন, ‘আমরা শান্তিপূর্ণভাবে সড়ক অবরোধ করে আন্দোলন চালিয়ে যাচ্ছিলাম। পুলিশ আমাদের ওপর লাঠিচার্জ করে। আমাদেরকে লাথি মেরে রাস্তা থেকে উঠিয়ে দিয়েছে। আমাদের অনেক শিক্ষার্থী আহত হয়েছেন। আমাদের সঙ্গে কথা না বলেই আমাদের ওপর হামলা করেছে পুলিশ।’



শিক্ষার্থীরা বলছেন, ‘২০১৯ সালে শেষ বর্ষের পরীক্ষা আজ শুরু হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু গত দুইদিন আগে শিক্ষামন্ত্রী সব স্থগিতের ঘোষণা দেন। এখন পর্যন্ত শিক্ষার্থীরা কলেজের গেটের ভেতর অবস্থান করে আন্দোলন চালিয়ে যাচ্ছেন। কলেজটির সামনে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন রয়েছে।’



কলেজ অব হোম ইকোনমিক্স ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধিভুক্ত। এ বিষয়ে জানতে চাইলে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামান বলেন, কলেজের অধ্যক্ষ বিষয়টি আমাকে জানিয়েছেন। তিনি ডিনের মাধ্যমে আমাকে লিখিত পাঠাবেন। আমরা এরপর বিষয়গুলো বিবেচনা করে সিদ্ধান্ত গ্রহণ করবো।’



এদিকে আন্দোলন শিক্ষার্থীদের সেঙ্গে দেখা করেছেন কলেজ অব হোম ইকোনমিক্সের অধ্যক্ষ ইসমাত রুমিনা। তবে শিক্ষার্থীদের বোঝাতে ব্যর্থ হয়ে তিনি ফিরে যান। বর্তমানে অধ্যক্ষসহ অন্যান্য শিক্ষকরা কলেজে অবস্থান করছেন।



শিক্ষার্থীদের দাবির বিষয়ে অধ্যক্ষ প্রফেসর ইসমাত রুমিনা বলেন, ‘শিক্ষার্থীরা আমাদের সঙ্গে কথা না বলেই আন্দোলন চালিয়ে যাচ্ছেন। তারা চাচ্ছেন শিক্ষামন্ত্রীর পক্ষ থেকে দিক নির্দেশনা আসুক। আমরা অভিযোগগুলো লিখিত আকারে দিতে বলেছি।’


আরো পড়ুন