শিরোনাম :

  • ডি মারিয়া উড়িয়ে দিলেন রিয়ালকে তিন সপ্তাহ পরিকল্পনা, অতঃপর অভিযানের গ্রিন সিগন্যাল কোহলির ব্যাটে সহজ জয় ভারতের বিএনপি নেতা শামসুজ্জামান দুদুর বাড়িতে হামলা জাবি উপাচার্যকে পদত্যাগের জন্য আল্টেমেটাম
সাকিবকে পেছনে ফেলে ‘দ্রুততম শতক’ তাইজুলের
স্পোর্টস ডেস্ক :
০৫ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ১১:৩১:৫৯
প্রিন্টঅ-অ+


গত মার্চে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে ওয়েলিংটন টেস্টেই হয়ে যেতে পারত রেকর্ডটি; কিন্তু ব্যাটসম্যানদের ব্যর্থতায় সে ম্যাচে বোলিং করতে পেরেছিলেন কেবল এক ইনিংসে। যে কারণে মাত্র ১ উইকেটের জন্য প্রায় ছয় মাস অপেক্ষা করতে হলো বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের বাঁ-হাতি স্পিনার তাইজুল ইসলামকে।

ওয়েলিংটনের সেই ম্যাচে ২ উইকেট শিকার করে, টেস্ট ক্রিকেটে নিজের উইকেটসংখ্যাকে ৯৯-এ উন্নীত করেছিলেন তাইজুল। সেটিকে ছয় মাস পর আজ (বৃহস্পতিবার) আফগানিস্তানের বিপক্ষে ম্যাচে শতকে পরিণত করলেন এ বাঁ-হাতি স্পিনার।

আফগান ওপেনার ইহসানউল্লাহ জানাতকে সরাসরি বোল্ড করে নিজের টেস্ট ক্যারিয়ারের এ মাইলফলকে পৌঁছান তাইজুল। ইনিংসের ১৩তম ওভারের দ্বিতীয় বলে তাইজুলের করা বলের লাইন মিস করে সরাসরি বোল্ড হয়ে যান ইব্রাহিম, বনে যান তাইজুলের শততম শিকার।

বাংলাদেশের পক্ষে ১০০ উইকেটে দ্রুততম বোলার এখন তাইজুল। উইকেটের এ সেঞ্চুরি করতে তার প্রয়োজন পড়ল ২৫টি টেস্ট ম্যাচের ৪৪টি ইনিংস। তার আগে বাংলাদেশের পক্ষে ১০০’র বেশি উইকেট শিকার করেছেন মোহাম্মদ রফিক ও সাকিব আল হাসান। এর মধ্যে সাকিব ২৮ ও রফিক খেলেছিলেন ৩৩টি ম্যাচ।

তবে সবমিলিয়ে টেস্ট ক্রিকেটে দ্রুততম ১০০ উইকেটের রেকর্ডে বেশ নিচেই অবস্থান করছেন তাইজুল। ১৮৮৬ থেকে ১৮৯৬ সালের মধ্যে মাত্র ১৬ টেস্ট খেলে ১০০ উইকেট শিকার করেছিলেন ইংল্যান্ডের পেসার জর্জ আলফ্রেড নোবেল। যা আজও টিকে রয়েছে টেস্ট ক্রিকেটে দ্রুততম ১০০ উইকেটের রেকর্ড হিসেবে।

বাংলাদেশের পক্ষে টেস্ট ক্রিকেটে সর্বোচ্চ উইকেট

১. সাকিব আল হাসান - ৫৬ ম্যাচে ২০৫* উইকেট

২. তাইজুল ইসলাম - ২৫ ম্যাচে ১০০* উইকেট

৩. মোহাম্মদ রফিক - ৩৩ ম্যাচে ১০০ উইকেট

৪. মেহেদি হাসান মিরাজ - ২০ ম্যাচে ৮৬* উইকেট

৫. মাশরাফি বিন মর্তুজা - ৩৬ ম্যাচে ৭৮ উইকেট

বাংলাদেশের পক্ষে দ্রুততম ১০০ উইকেট

১. তাইজুল ইসলাম - ২৫ ম্যাচ

২. সাকিব আল হাসান - ২৮ ম্যাচ

৩. মোহাম্মদ রফিক - ৩৩ ম্যাচ



আমার বার্তা/০৫ সেপ্টেম্বর ২০১৯/জহির


আরো পড়ুন