শিরোনাম :

  • ২১ বছর বঙ্গবন্ধুর নাম মুছে ফেলা হয়েছিল : প্রধানমন্ত্রী ঐতিহ্যের ধারা অব্যাহত রেখে জাতীয় সংসদ এগিয়ে যাবে : স্পিকার করোনাভাইরাস: ইরানে মৃতের সংখ্যা ছয়, ১৪ প্রদেশে বিধি-নিষেধ ইতালিতে করোনায় আক্রান্ত ৭৯
৭ রানে ৭ উইকেট, বিব্রতকর পরাজয় ডি ভিলিয়ার্স-লিনদের
স্পোর্টস ডেস্ক :
২০ জানুয়ারি, ২০২০ ১১:৪৯:৪৮
প্রিন্টঅ-অ+


১৬৫ রানের মাঝারি লক্ষ্যে ঝড়ো সূচনা করেছিলেন ক্রিস লিন ও স্যাম হ্যাজলেট। দুজনের উদ্বোধনী জুটিতে প্রথম ৬ ওভারেই আসে ৮৪ রান। যার ফলে শেষের ৮৪ বলে করতে হতো মাত্র ৮১ রান। কিন্তু প্রথমে ২ রানে ৩ উইকেট ও পড়ে ৭ রানে ৭ উইকেট হারিয়ে ৪৪ রানের ব্যবধানে ম্যাচ হেরে গেছে লিন-ডি ভিলিয়ার্সদের ব্রিসবেন হিট।

সবমিলিয়ে শেষের ৩৬ রানে নিজেদের ১০টি উইকেট হারিয়েছে ব্রিসবেন। যা কি না অস্ট্রেলিয়ান বিগ ব্যাশের ইতিহাসে সবচেয়ে বাজে বিপর্যয়ের রেকর্ড। বিব্রতকর এ রেকর্ড গড়ে সুপার ফোরে খেলার সম্ভাবনা কমিয়ে ফেলেছে ব্রিসবেন।

সোমবার পয়েন্ট টেবিলের তলানীর দল মেলবোর্ন রেনেগেডসের মুখোমুখি হয়েছিল ব্রিসবেন। আগে ব্যাট করে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৬ উইকেট হারিয়ে ১৬৪ রানের সংগ্রহ দাঁড় করায় মেলবোর্ন। যা কি না লিন, ডি ভিলিয়ার্স, জো বার্নস, বেন কাটিংদের জন্য খুব বড় কোনো লক্ষ্য নয়।

উদ্বোধনী জুটিতেও সহজ জয়ের ইঙ্গিতই দিচ্ছিলেন লিন ও হ্যাজলেট। পাওয়ার প্লে'র পূর্ণ ব্যবহার করে ৬ ওভারে তারা যোগ করেন ৮৪ রান। কিন্তু চার বলের ব্যবধানে ৩ উইকেট হারিয়ে বিনা উইকেটে ৮৪ থেকে ৩ উইকেটে ৮৬ রানের দলে পরিণত হয় ব্রিসবেন।

অধিনায়ক লিন ৫ চার ও ৩ ছয়ের মারে ১৫ বলে করেন ৪১ রান। এরপর এবি ডি ভিলিয়ার্স ২ ও ম্যাট রেনশ আউট হন রানের খাতা খোলার আগেই। এ তিন উইকেট নিয়ে ব্রিসবেনকে চাপে ফেলে দেয় মেলবোর্ন। তবু জো বার্নসকে সঙ্গে নিয়ে ধীরে সুস্থে এগুচ্ছিলেন হ্যাজলেট। ইনিংসের ১২.২ ওভারে তাদের সংগ্রহ দাঁড়ায় ৩ উইকেটে ১১৩ রান।

তখন জয়ের জন্য করতে হতো ৪৬ বলে ৫২ রান, হাতে ৭টি উইকেট। কিন্তু এ ৭ উইকেট মাত্র ১৬টি বলের মধ্যেই হারিয়ে ফেলে ব্রিসবেন, স্কোরবোর্ডে যোগ হয় ঠিক ৭ রান। চোখের পলকে ৩ উইকেটে ১১৩ রান থেকে ১২০ রান তুলতেই অলআউট হয়ে যায় লিন-ডি ভিলিয়ার্সদের দল। হেরে যায় ৪৪ রানের ব্যবধানে।

এ পরাজয়ের পর ১১ ম্যাচে ৫ জয়ে ১০ পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের আট দলের মধ্যে ছয় নম্বরে অবস্থান করছে ব্রিসবেন। সমান ম্যাচে মেলবোর্ন জিতেছে মাত্র ২টিতে। তাদের অবস্থান সবার নিচে।



আমার বার্তা/২০ জানুয়ারি ২০২০/জহির


আরো পড়ুন