শিরোনাম :

  • ঢাকায় বাড়তে পারে তাপমাত্রা করোনার ছোবলে এবার চলে গেলেন এসআই মোশাররফ সপ্তাহে তিন দিন ছুটির বিধান আসছে নিউজিল্যান্ডে পেরুতে একদিনেই আক্রান্ত প্রায় ৩ হাজার
প্রোটিয়া টি-টোয়েন্টি লিগে বাড়ছে আরও দুই দল
স্পোর্টস ডেস্ক :
০৬ মে, ২০২০ ১১:১০:৩৪
প্রিন্টঅ-অ+


প্রথম দুই আসরের আর্থিক ক্ষতির পর তৃতীয় মৌসুমের টুর্নামেন্টে বেশ কিছু পরিবর্তন আসছে দক্ষিণ আফ্রিকার সর্বোচ্চ ঘরোয়া টি-টোয়েন্টি টুর্নামেন্ট এমজানসি সুপার লিগে (এমএসএল)। করোনাভাইরাসের কারণে টুর্নামেন্ট অনিশ্চিত থাকলেও, জানা গেছে সরাসরি টেলিভিশনে দেখান হবে তৃতীয় আসরের খেলা।

শুধু তাই নয়! প্রথম দুই আসরে ছয়টি দল খেললেও, তৃতীয় আসরে বাড়বে আরও দুইটি দল। ইএসপিএন ক্রিকইনফোর প্রতিবেদন মোতাবেক, নতুন দুই দল হবে ব্লুমফন্টেইন এবং ইষ্ট লন্ডন থেকে। এছাড়া খেলা সরাসরি সম্প্রচারের জন্য প্রোটিয়া বোর্ড সুপারস্পোর্টের সঙ্গে কথাবার্তা চালাচ্ছে।

২০১৮ সালে এমএসএল চালুর পর প্রথমবারের মতো লাভের সুযোগ দেখছে দক্ষিণ আফ্রিকা ক্রিকেট বোর্ড। টুর্নামেন্টের প্রথম দুই বছরে প্রায় ১১ কোটি ডলারের কাছাকাছি ক্ষতির মুখোমুখি হয়েছে তারা।

গত দুই আসরে এমএসএলের টিভি সম্প্রচার স্বত্ব অবিক্রিতই থেকে গিয়েছিল। কেননা দক্ষিণ আফ্রিকার অন্যান্য খেলা সম্প্রচার করা সুপারস্পোর্ট, এই টুর্নামেন্টের ব্যাপারে কোন আগ্রহ দেখায়নি। তারা ভেবেছিল বোর্ডের সঙ্গে থাকা চুক্তির মধ্যেই পড়বে এমএসএলের খেলাগুলো।

সুপারস্পোর্ট না দেখালেও গত দুই মৌসুমের খেলা সরাসরি দেখান হয়েছিল এসএবিসিতে। এজন্য তারা কোন টাকা দেয়নি ক্রিকেট বোর্ডকে। তবে খেলার প্রচার হওয়ায় নতুন মৌসুমেও এসএবিসিকে হাইলাইটস সরবরাহের কথা ভাবছেন আয়োজকরা।

এদিকে এমএসএলে আরও দুই বাড়ায় দক্ষিণ আফ্রিকার ঘরোয়া ক্রিকেটের সমস্যাও সমাধান হতে চলেছে। গত ১৬ বছর ধরে ছয়টি ফ্র্যাঞ্চাইজি চারদিনের টুর্নামেন্ট, ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টি লিগ খেলে আসছিল। এছাড়া ১৪টি রাজ্য দল খেলছিল তিনদিনের টুর্নামেন্ট, ওয়ানডে এবং টি-টোয়েন্টি ক্রিকেট।

এমএসএলের পরবর্তী মৌসুমের সম্ভাব্য সূচি ২০২০ সালের ডিসেম্বরে। তবে করোনাভাইরাসের কারণে এটি যথাসময়ে না হওয়ার সম্ভাবনাই বেশি। সেক্ষেত্রে ২০২১ সালের মার্চে এটি আয়োজনের ব্যাপারেও ভেবে রেখেছেন আয়োজকরা।



আমার বার্তা/০৬ মে ২০২০/জহির


আরো পড়ুন