শিরোনাম :

  • দুবাই শাসকের সঙ্গে শেখ হাসিনার বৈঠক আরব আমিরাতের আরও বড় বিনিয়োগ প্রত্যাশা প্রধানমন্ত্রীর ওয়েস্ট ইন্ডিজকে সহজে হারিয়ে টি-টোয়েন্টি সিরিজ আফগানিস্তানের রোনালদোর গোলে ইউরোর মূলপর্বে পর্তুগাল গ্রিজম্যান ঝলকে গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হয়ে ইউরোর মূলপর্বে ফ্রান্স
গোপালগঞ্জে হাত-পা বেঁধে নদীতে ফেলে এক ব্যক্তিকে হত্যা
গোপালগঞ্জ প্রতিনিধি :
১৬ অক্টোবর, ২০১৯ ১০:৩৬:৪৭
প্রিন্টঅ-অ+


গোপালগঞ্জের মুকসুদপুরে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে শাহ আলম শেখ (৫৫) নামে এক ব্যক্তিকে হাত-পা বেঁধে নদীতে ফেলে হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা।

মঙ্গলবার রাতে কুমার নদ থেকে ওই ব্যক্তির হাত-পা বাঁধা মরদেহ উদ্ধার করে এলাকাবাসী।

মুকসুদপুর উপজেলার গোহালা ইউনিয়নের উত্তর গঙ্গারামপুর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। নিহত শাহ আলম মুকসুদপুর উপজেলার গোহালা ইউনিয়নের উত্তর গঙ্গারামপুর গ্রামের মৃত আব্দুল খালেক শেখের ছেলে।

মুকসুদপুর সিন্দিয়াঘাট পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের ইনচার্জ আবুল বাসার জানিয়েছেন, মুকসুদপুর উপজেলার গোহালা ইউনিয়নে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে মঙ্গলবার সকালে সিন্দিয়াঘাট বাজারে সাবেক চেয়ারম্যান লিটন বয়াতি ও বর্তমান চেয়ারম্যান সফিকুল আলম মোল্লার সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষ ঘটে। এতে উভয় পক্ষের মহিলাসহ অন্তত ১০ জন আহত হয়। আহতদের মাদারীপুরের রাজৈর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়।

দুপুরে শাহ আলম রাজৈর হাসপাতালে ভর্তি আহত চাচাতো বোন মিনাকে দেখে বাড়ীর ফেরার পথে নিখোঁজ হন। এসময় অনেক খোঁজা-খুঁজি করেও শাহ আলমের সন্ধান পায়নি পরিবারের লোকজন।

পরে এলাকাবাসী রাতে হাত-পা বাঁধা অবস্থায় শাহ আলমকে কুমার নদে ভাসতে দেখে উদ্ধার করে রাজৈর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসলে চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

রাজৈর স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. প্রদীপ চন্দ্র মণ্ডল জানান, হাসপাতালে আনার আগেই শাহ আলম শেখের মৃত্যু হয়েছে।



আমার বার্তা/১৬ অক্টোবর ২০১৯/রহিমা


আরো পড়ুন