শিরোনাম :

  • জবানবন্দিতে বুলুসহ ১৫ বিএনপি নেতার নাম পেয়েছে পুলিশ উখিয়ায় রোহিঙ্গা ক্যাম্পে সন্ত্রাসীদের গুলিতে নিহত ২দুই ট্রাকের মুখোমুখি সংঘর্ষ, নিহত ২ আইসিসির সেরা হওয়ার দৌড়ে বাংলাদেশের নাসুম
আনসার বিদ্রোহ : চাকরি পুনর্বহাল প্রশ্নে আপিল নিষ্পত্তি
নিউজ ডেস্ক
০২ আগস্ট, ২০২২ ১৯:৪৯:১৭
প্রিন্টঅ-অ+

১৯৯৪ সালের আনসার বিদ্রোহের ঘটনায় চাকরিচ্যুতদের কিছু সুযোগ-সুবিধা দিয়ে মামলা নিষ্পত্তি করে দিয়েছেন আপিল বিভাগ। মঙ্গলবার প্রধান বিচারপতি হাসান ফয়েজ সিদ্দিকীর নেতৃত্বাধীন আপিল বিভাগ এ রায় দেন।বেঞ্চের অন্য সদস্যরা হলেন- বিচারপতি ওবায়দুল হাসান এবং বিচারপতি এম ইনায়েতুর রহিম।


রায়ে অভিযোগ থেকে খালাস পাওয়াদের মধ্যে যাদের বয়স ও শারীরিক-মানসিক সক্ষমতা আছে তাদের চাকরিতে পুনর্বহালের আদেশ দেয়া হয়। অন্যদিকে যাদের সক্ষমতা নেই তারা যতদিন চাকরিতে ছিলেন তাদের ততদিনের পেনশন সুবিধা দিতে বলা হয়েছে। পাশাপাশি কিছু পর্যবেক্ষণও দিয়েছেন আদালত।


আদালতে রিট আবেদনকারীদের পক্ষে শুনানিতে ছিলেন আইনজীবী অ্যাডভোকেট মো. মোমতাজ উদ্দিন ফকির, অ্যাডভোকেট মো. সালাহ উদ্দিন দোলন ও ব্যারিস্টার অনীক আর হক। অন্যদিকে আনসার ভিডিপি মহাপরিচালকের পক্ষে ছিলেন অ্যাটর্নি জেনারেল এ এম আমিন উদ্দিন।


ব্যারিস্টার অনিক আর হক বলেন, এ রায়ের ফলে হাইকোর্টের দেয়া রায় বহাল থাকল।


বিভিন্ন দাবি নিয়ে ১৯৯৪ সালের ৩০ নভেম্বর আনসার বাহিনীর সদস্যদের মধ্যে অসন্তোষ দেখা দেয়। যা পরে বিদ্রোহে রূপ নেয়। আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর বিভিন্ন সংস্থার সহযোগিতায় ওই বছরের ৪ ডিসেম্বর বিদ্রোহ নিয়ন্ত্রণ করা হয়।


এ ঘটনায় পরে ২ হাজার ৬৯৬ কর্মকর্তা-কর্মচারীর মধ্যে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সুপারিশে কয়েকজনকে চাকরিতে পুনর্বহাল করা হলেও বাকি ২ হাজার ৪৯৬ আনসারকে চাকরিচ্যুত করা হয়। পরে তাদের বিরুদ্ধে পৃথক ৭টি ফৌজদারি মামলায় ১৩২ জনের বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র দেয়া হয়। 


অভিযুক্তরা বিচারে খালাস পেলেও তাদের চাকরি ফিরিয়ে দেয়া হয়নি। এ কারণে ২০১৮ সালের বিভিন্ন সময়ে অভিযোগ থেকে খালাস পাওয়া ২ হাজার ৩৬৩ জন চাকরিতে পুনর্বহালের নির্দেশনা চেয়ে রিট করেন। পরবর্তীতে হাইকোর্টে তাদের চাকরিতে পুনর্বহালের রায় দিয়ে পরবর্তী সময়ে তিন মাসের মধ্যে বাস্তবায়ন করতে বলা হয়।


কিন্তু আনসার ভিডিপির মহাপরিচালক আপিল বিভাগে হাইকোর্টের রায়ের বিরুদ্ধে আবেদন করেন।

আরো পড়ুন