শিরোনাম :

  • নয়াপল্টনে বিএনপির নেতাকর্মীদের সঙ্গে পুলিশের সংঘর্ষ জবানবন্দিতে বুলুসহ ১৫ বিএনপি নেতার নাম পেয়েছে পুলিশ সেনা অভ্যুত্থানবিরোধী বিক্ষোভে উত্তাল সুদান, সংঘর্ষে নিহত ৭দুই ট্রাকের মুখোমুখি সংঘর্ষ, নিহত ২
নব্বই দশকের ব্যান্ডশিল্পী এখন টয়লেটের তত্ত্বাবধায়ক
২৬ মে, ২০২২ ১৭:৪৩:৪৮
প্রিন্টঅ-অ+


নব্বই দশকের ব্যান্ডদল ‘ব্লু হরনেট’-এর ভোকাল মনসুর হাসান। চট্টগ্রামের মহসিন কলেজে এইচএসসি দ্বিতীয় বর্ষে পড়ার সময় ৬ বন্ধু মিলে গড়ে তুলেছিলেন ব্যান্ডটি। মনসুর হাসানের কণ্ঠে ‘বাটালি হিলের সেই বিকেল’, ‘ছোট্ট একটি মেয়ে’, ‘কত না বছর’সহ বেশ কিছু গান ওই সময় জনপ্রিয় হয়।

কিন্তু ভাগ্য এই গায়ককে দাঁড় করিয়েছে জীবনের চরম পরীক্ষার মুখোমুখি। এক সময়ের জনপ্রিয় গায়ক মনসুর হাসান এখন চট্টগ্রাম নগরের জামালখান মোড়ের পাবলিক টয়লেটের তত্ত্বাবধায়ক। নেই ঘরবাড়ি কিংবা সংসার। এই শিল্পীর ঠিকানা আজ টয়লেটের পাশে ছোট্ট একটি বেঞ্চ। রোগ-শোকে আক্রান্ত হয়ে মানবেতর জীবনযাপন করছেন তিনি। জানা যায়, মাদকাসক্ত হয়ে পড়ালেখা এবং পরিবারের থেকে দূরে সরে যান মনসুর হাসান। এরপর জড়িয়ে যান রাজনীতিতে, গেছেন কারাগারেও। আর বাবা-মায়ের মৃত্যুর পর পাল্টে যায় তার জীবনের দৃশ্যপট। খেয়ে না খেয়ে পথে-ঘাটে কেটেছে তার বহু দিন। মনসুর হাসান বলেন, ভারত থেকেও অ্যালবাম করার প্রস্তাব পেয়েছিলেন তিনি। কিন্তু নানা কারণে সেই অ্যালবামের কাজটি করা হয়নি তার। কয়েক বছর আগে মাত্র ৯ হাজার টাকা বেতনে পাবলিক টয়লেটের তত্ত্বাবধায়কের চাকরি নেন।  ৫৪ বছর বয়সী মনসুর হাসানের বর্তমান পরিস্থিতির বিষয়টি প্রথম প্রকাশ্যে আসে স্থানীয় ওয়ার্ড কাউন্সিলর শৈবাল দাশ সুমনের একটি ভিডিওতে। সেটি এখন ভাইরাল সামাজিকমাধ্যমে।  ১২ মিনিট ১৫ সেকেন্ডের সেই ভিডিওতে আজকের এই অবস্থা কীভাবে হয়েছে সে সম্পর্কে কথা জানিয়েছেন মনসুর হাসান। তিনি জানান, অনেক দিন গান-বাজনায় না থাকায় তার সুর হারিয়ে গেছে।


আরো পড়ুন