শিরোনাম :

  • রাজধানীতে ট্রাকের ধাক্কায় বৃদ্ধ নিহত জবানবন্দিতে বুলুসহ ১৫ বিএনপি নেতার নাম পেয়েছে পুলিশ উখিয়ায় রোহিঙ্গা ক্যাম্পে সন্ত্রাসীদের গুলিতে নিহত ২দুই ট্রাকের মুখোমুখি সংঘর্ষ, নিহত ২
মৃত্যুর পর আমার পরিবারের কাছে কিছু শেষ চাওয়া
প্রসূন আজাদ
১১ আগস্ট, ২০২২ ১২:১৫:০২
প্রিন্টঅ-অ+

আমার মৃত্যুর পর আমার পরিবারের কাছে কিছু শেষ চাওয়ার কথা- 


আমার স্বামীর কাছে যা চাওয়া- 

১। আমার মৃত্যুর পর কবরে দিয়ে সবাই যখন চলে যাবে, আপনি কিছুক্ষণ পর যাবেন। আপনি আমার চেয়ে ধর্ম কর্মে ভালো তাই দোয়া দুরুদ পড়ে কিছুক্ষণ আমার সাথে থাকবেন।

২। সন্তান জন্মের পরে আমার মৃত্যু হলে সন্তানকে একটা ভালো ক্যাডেট স্কুলের হোস্টেলে না দেয়া পর্যন্ত আপনি দ্বিতীয় বিবাহ করতে পারবেন না।

৩। আমার যত শাড়ি সব যদি কন্যা সন্তান হয় তাকে দিবেন, আর পুত্র হলে তার চাচিরা অর্থাৎ আমার দুই দেবরের (সাদ এবং আকাশ) বউরা পাবে। শুধু বিয়ের শাড়ীটা আজীবন আপনার কাছে রাখবেন। আর যত ডিভাইস সেগুলোও আপনার কাছে রাখবেন।

৪। আমার যেটুকুই আছে সকল গয়না, বিশেষ করে স্বর্ণ হীরা এসব বিক্রি করে নগদ টাকা করে তিন ভাগের এক ভাগ কোনো বেকার ছেলেকে দিবেন। (যার পরিবারে লোক সংখ্যা বেশি এমন কেউ)

৫। আমার পেইন্টিং এর যাবতীয় জিনিসপত্র আরিজকে দিয়ে দিবেন।

৬। ২য় বিবাহের আগেই গ্যাসের গাড়ি বিক্রি করে দিবেন। আমি ছাড়া সে গাড়িতে আর কোনো প্রেমিকাকে উঠাবেন না।

৭। আপনি যতদিন জীবিত থাকবেন আমার মা বাবার পাশে থাকবেন। বিশেষ করে বিপদের সময়।

৮। সপ্তাহে একদিন আমাদের বাবুকে নিয়ে আপনার শাশুড়ির সাথে দেখা করতে যাবেন। সম্ভব হলে ফ্রিজ খুলে দেখবেন বাজার করা প্রয়োজন আছে কিনা।

৯। ২য় বিবাহের পর আমার দেয়া কোনো পাঞ্জাবি বা যেকোনো কিছু পরবেন না।

১০। প্রতি বছর ২৭ এপ্রিল টিকাটুলি মসজিদে দানখয়রাত করবেন।

১১। আমার ইংলিশ কোরআনটা আবীরকে দিবেন আর বাংলা অর্থটা আনিকাকে দিবেন।

১২। যেহেতু দেনমোহরে আমার দাবী ছিল হজ্জ, আমি হজ্জ না করেই যদি চলে যাই, আমার মৃত্যুর পর আপনি অবশ্যই হজ্জে যাবেন। 


আব্বুর করনীয়- 

১। আপনার সকল বইপত্র আমার নামে একটি লাইব্রেরী করে সংরক্ষণ করবেন।

২। আপনার থেকে প্রাপ্য যে সম্পত্তি আমার হবে সেটা দুইভাগ করে এক অংশ আবীরের জন্য আর অন্য অংশ আমার সন্তানকে দিবেন। সন্তান না থাকলে আমার স্বামীকে দিবেন। 

৩। আমি কথা দিয়েছিলাম আম্মুকে কক্সবাজার নিয়ে যাবো, যদি এর আগেই আমার মৃত্যু হয় আমার মাকে নিয়ে কক্সবাজার ঘুরতে যাবেন। 


আম্মুর করনীয়- 

১। আমার জন্য কষ্ট না পেয়ে হাসি খুশি থাকতে হবে।

২। আমার বিড়াল ছানাকে আমৃত্যু পালতে হবে। 


আমার শাশুড়ির প্রতি অনুরোধ- 

১। প্রতি বছর আমার বিবাহবার্ষিকীর পরের দিন ৩১ জুলাই সকাল বেলা নেহারি রান্না করে সবাইকে খাওয়াবেন। সবাই সেজেগুজে একসাথে বসে খাবেন, যেভাবে আমার বিয়ের পরের দিন আয়োজন করেছিলেন।

২। আমার কুন্দনের গয়নাগুলো রাইয়ানের- আরিয়ানের বউকে দিবেন।


(ফেসবুক থেকে সংগৃহীত)


লেখক পরিচিতি : ২০১২ সালে লাক্স চ্যানেল আই সুপারস্টারের প্রথম রানারআপ হয়ে শোবিজে নাম লেখান প্রসূন আজাদ। ‘অচেনা হৃদয়’, ‘সর্বনাশা ইয়াবা’ ও ‘মৃত্যুপুরী’ সিনেমায় নায়িকা হিসেবে অভিনয় করেছেন।  তার সবশেষ মুক্তি প্রাপ্ত সিনেমা ‘পদ্মপুরাণ’। এছাড়াও অসংখ্য টিভি নাটকেও অভিনয় করেছেন তিনি। 

আরো পড়ুন