শিরোনাম :

  • নয়াপল্টনে বিএনপির নেতাকর্মীদের সঙ্গে পুলিশের সংঘর্ষ জবানবন্দিতে বুলুসহ ১৫ বিএনপি নেতার নাম পেয়েছে পুলিশ সেনা অভ্যুত্থানবিরোধী বিক্ষোভে উত্তাল সুদান, সংঘর্ষে নিহত ৭দুই ট্রাকের মুখোমুখি সংঘর্ষ, নিহত ২
করোনা মহামারি মোকাবেলায়
নিয়োগ দেয়া হচ্ছে ১৫ হাজার স্বাস্থ্যকর্মী
মুনিরুল তারেক
২৬ জানুয়ারি, ২০২২ ১০:৫২:৫৪
প্রিন্টঅ-অ+

শুরু থেকে দুই দফায় দেশে আঘাত হেনেছে করোনাভাইরাস। এই মহামারির বিভিন্ন ভ্যারিয়েন্ট অসংখ্য মানুষের প্রাণ কেড়ে নিয়েছে, অনেকের শরীরকে মারাত্মকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত করেছে। সবশেষ ডেল্টা ভ্যারিয়েন্টে সংক্রমন বৃদ্ধির মাঝেই নতুন করে মাথাচাড়া দিয়েছে আফ্রিকান ভ্যারিয়েন্ট ওমিক্রন। ডেল্টা ও ওমিক্রন মিলিয়ে দেশের করোনা পরিস্থিতি দিন দিন খারাপের দিকে যাচ্ছে। সামনে করোনা আরও ভয়ঙ্কর রূপ ধারণ করতে পারে, এমন আশঙ্কা বিবেচনায় নিয়ে পরিস্থিতি সামলানোর প্রস্তুতি হিসেবে স্বাস্থ্যকর্মী নিয়োগের উদ্যোগ নিয়েছে স্বাস্থ্য বিভাগ।


সূত্র জানিয়েছে, করোনাভাইরাস সংক্রমণ রোধে ১৫ হাজার ৭২৬ জন স্বাস্থ্যকর্মী নিয়োগ দেয়া হবে। তাদের বেতন-ভাতা পরিশোধে প্রয়োজন হবে ৩৮১ কোটি ৬১ লাখ টাকা। স্বাস্থ্য সেবা বিভাগ থেকে এজন্য সংশোধিত বাজেটে এই অর্থ চাওয়া হবে। স¤প্রতি করোনাভাইরাস দ্রæত ছড়িয়ে পড়ছে। তা মোকাবেলায় জনস্বার্থে ওই অর্থ চাওয়া হয়েছে। অর্থ বরাদ্দ পেলেই প্রয়োজনীয় সংখ্যক ডাক্তার, নার্স এবং মিডওয়াইফ নিয়োগ দেয়া হবে। এছাড়া চলতি অর্থবছরের (২০২১-২০২২) বাজেটে অব্যয়িত ১১৩ কোটি ৭৩ লাখ টাকা করোনারভাইরাস মোকাবিলায় প্রয়োজনীয় সরকারি হাসপাতাল এবং জেলা পর্যায়ের হাসপাতালে ব্যয় করা হবে। এ বিষয়ে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক ডা. আবুল বাশার মোহাম্মদ খুরশীদ আলম বলেন, ‘কভিড-১৯ পরিস্থিতি আবারো উর্ধ্বমুখী। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে সরকার বিধি-নিষেধ জারি করলেও সংক্রমন বাড়ছে। হাসপাতালগুলোয় রোগী আরো বাড়বে বলে আশঙ্কা করছি। সবার চিকিৎসা সেবা নিশ্চিত করতে আমাদের স্বাস্থ্যকর্মী প্রয়োজন। বিশেষ চিকিৎসক ও নার্সের সংখ্যা আরো বাড়ানো না গেলে পরিস্থিতি সামলানো মুশকিল হতে পারে।’


স¤প্রতি স্বাস্থ্য সেবা বিভাগের সিনিয়র সচিব লোকমান হোসেন মিয়ার সভাপতিত্বে বাজেট বরাদ্দ সভায় এসব দাবি, বিভাগের আর্থিক অবস্থা ও চাহিদা বিষয়ে আলোচনা হয়। চলতি মাসের শেষ সপ্তাহে সংশোধিত বাজেট সভায় অতিরিক্ত তহবিলের এ প্রস্তাব চূড়ান্ত করা হবে বলে জানা গেছে। তথ্য বলছে, দেশের স্বাস্থ্য খাতে ২০২১-২০২২ অর্থবছরে ৩২ হাজার ৭৩১ কোটি টাকা বরাদ্দ করা হয়েছিল। এ বরাদ্দ ছিল মোট জিডিপির শূন্য দশমিক ৯৫ শতাংশ। এ অর্থের মধ্যে চিকিৎসক ও স্বাস্থ্যকর্মীদের বেতন-ভাতা বাবদ মোট ১৮ হাজার কোটি টাকা বরাদ্দ রাখা হয়েছে। বরাদ্দ করা অর্থের বাকি অংশ সম্পর্কে অর্থ বিভাগের একজন কর্মকর্তা জানান, করোনাভাইরাস মহামারির তৃতীয় ঢেউয়ের সময় দেশে পিসিআর পরীক্ষা ও টিকাদান কার্যক্রম চালানোর জন্য বাকি অংশের ১৫ হাজার কোটি টাকা যথেষ্ট।


অপরদিকে, স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক এক সংবাদ সম্মেলনে বলেছেন, চিকিৎসক নিয়োগ প্রক্রিয়া খুব দ্রæত সম্পন্ন করতে চাই। হাসপাতালগুলোর পরিস্থিতিও উদ্বেগজনক হয়ে উঠেছে উল্লেখ করে তিনি বলেন, বর্তমানে দেশে দুই হাজার জনেরও বেশি মানুষ হাসপাতালে ভর্তি রয়েছেন। এদের মধ্যে শুধু ঢাকা শহরেই হাসপাতালে ভর্তি রয়েছেন এক হাজার রোগী। এদিকে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর সূত্রে জানা গেছে, দেশে করোনা সংক্রমণের হার প্রতিদিনই বাড়ছে। ইতোমধ্েয করোনা শনাক্তের হার ২০ দশমিক ৮৮ শতাংশ ছাড়িয়েছে। ওমিক্রনের কারণে দেশে সংক্রমণ বাড়ছে। ডেল্টা, ওমিক্রনসহ করোনার বিভিন্ন ভ্যারিয়েন্ট থেকে রক্ষার জন্য সবাইকে আরও বেশি সতর্কভাবে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে পরামর্শ দিয়েছে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর।

আরো পড়ুন