শিরোনাম :

  • নয়াপল্টনে বিএনপির নেতাকর্মীদের সঙ্গে পুলিশের সংঘর্ষ জবানবন্দিতে বুলুসহ ১৫ বিএনপি নেতার নাম পেয়েছে পুলিশ সেনা অভ্যুত্থানবিরোধী বিক্ষোভে উত্তাল সুদান, সংঘর্ষে নিহত ৭দুই ট্রাকের মুখোমুখি সংঘর্ষ, নিহত ২
ব্যাপক আয়োজনে চলছে জাতীয় পুষ্টি সপ্তাহ
নিজস্ব প্রতিবেদক
২৪ এপ্রিল, ২০২২ ১২:১৭:২৫
প্রিন্টঅ-অ+

‘হেলদি লাইফ উইথ প্রোপার নিউট্রেশন' অর্থাৎ ‘সঠিক পুষ্টিতে সুস্থ্য জীবন’- এই প্রতিপাদ্য নিয়ে শনিবার (২৩ এপ্রিল) থেকে শুরু হয়েছে জাতীয় পুষ্টি সপ্তাহ-২০২২। সাত দিনব্যাপী পুষ্টি সপ্তাহ ২৯ এপ্রিল শেষ হবে।


এই সাত দিনে জাতীয় পুষ্টি সপ্তাহ সফলভাবে বাস্তবায়ন, পুষ্টি সপ্তাহের গুরুত্ব ও প্রয়োজনীয়তা সম্পর্কে মানুষের কাছে তুলে ধরা হবে। এ জন্য প্রথম দিনে শনিবার নগরীর বিভিন্ন পয়েন্ট আলোকসজ্জা, সচেতনতামূলক ব্যানার, ফেস্টুন টাঙ্গানো ও গণমাধ্যমে প্রচার-প্রচারণা চালানো হয়েছে।


পুষ্টি সপ্তাহ উদযাপন উপলক্ষে আজ রোববার মহাখালীর জাতীয় প্রতিষেধক ও সামাজিক চিকিৎসা প্রতিষ্ঠান (নিপসম) অডিটরিয়ামে স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক প্রধান অতিথি হিসেবে এ কার্যক্রম উদ্বোধন করবেন। আগামীকাল সোমবার ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন মিলনায়তনে আরবান নিউট্রেশন বিষয়ক সেমিনার অনুষ্টিত হবে। পরের দিন ২৬ এপ্রিল বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের এ ব্লকে ‘নিউট্রেশন : অপোরচুনিটিজ অ্যান্ড চ্যালেঞ্জ’ শীর্ষক সেমিনার অনুষ্ঠিত হবে। ২৭ এপ্রিল গুলশানের হোটেল লেকশোরে ‘নিউট্রেশন গর্ভনেন্স’ শীর্ষক আলোচনা সভা হবে। এছাড়া জেলা-উপজেলায় পর্যায়ে পুষ্টি বিষয়ক কর্মশালা, আলোচনা সভাসহ বিভিন্ন কর্মসূচি হাতে নেয়া হয়েছে। পুষ্টি সপ্তাহের কার্যক্রম সবগুলো বিভাগ ও কমিউনিটি ক্লিনিকে চলমান থাকবে।


পুষ্টি সপ্তাহ উদযাপন উপলক্ষে গত বৃহস্পতিবার অনুষ্ঠিত অবহিতকরণ সভায় বক্তারা বলেন, দেশে দারিদ্র্যতা কমলে পুষ্টিহীনতা কমবে। নারীর ক্ষমতায়ন করলে শিশুরা পুষ্টিহীনতায় ভুগবে না। পুষ্টিহীনতায় ভুগলে শিশুর নানা ধরনের অসুখ-বিসুখ হয়ে থাকে। পুষ্টি সপ্তাহে সবার প্রতি আহ্বান শাক-সবজি, ফলমূলসহ সুষম খাবার খেতে হবে। তেল, চিনি, লবণ কম খেতে হবে। সঠিক পুষ্টির জন্য শিশুর জন্মের এক ঘন্টার মধ্যে শাল দুধ মায়ের শালদুধ খাওয়াতে হবে। ছয়মাস পর্যন্ত বুকের দুধ এবং ছয়মাসের পর থেকে ২ বছর পর্যন্ত মায়ের দুধের পাশাপাশি ঘরে তৈরি সুষম খাদ্য দিতে হবে। কিশোর-কিশোরীদের পুষ্টিকর খাবারে উৎসাহিত করতে হবে। গর্ভবতী ও প্রসুতিদের স্বাভাবিক খবারের পাশাপাশি বাড়তি খাবারে নজর দিতে হবে।


বর্তমানে দ্বিতীয় জাতীয় পুষ্টি কর্মপরিকল্পনা (২০১৬-২০২৫) এর আলোকে দেশব্যাপী পুষ্টি কার্যক্রম পরিচালতি হচ্ছে। এ লক্ষ্যে স্কুল হেলথ প্রোগ্রমের দিকে জোর দেওয়া হচ্ছে। স্বাস্থ্যসেবা ও স্বাস্থ্য রক্ষার জন্য কী করণীয় আছে, পুষ্টি সম্পর্কে আরও প্রচার-প্রচারণা বাড়ানো হচ্ছে। ছোট বয়সে স্কুলের কিশোর কিশোরী ছেলে-মেয়েদের পুষ্টি বিষয়ে সচেতনামূলক বার্তা শিক্ষাদান প্রচার করা হচ্ছে। এটি আরও বাড়ানো হবে। এছাড়া প্রতিটি বিভাগ, জেলা ও উপজেলা জনস্বাস্থ্য পুষ্টি প্রতিষ্ঠান কর্তৃক খাদ্য প্যাকেজের তালিকা অনুসারে ১০০ দুঃস্থ পরিবারের মাঝে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করা হবে।


অবহিতকরণ সভায় উপস্থিত ছিলেন জনস্বাস্থ্য পুষ্টি প্রতিষ্ঠানের পরিচালক অধ্যাপক ডা. নাসির উদ্দিন মাহমুদ, বাংলাদেশ জাতীয় পুষ্টি পরিষদ কার্যালয়ের পরিচালক ডা. জাবাইদা নাসরীন, জাতীয় পুষ্টি সেবার লাইন ডিরেক্টর ডা. এসএম মোস্তাফিজুর রহমান ও ডেপুটি প্রোগ্রাম ম্যানেজার ডা. গাজী আহমেদ হাসান তুহিন প্রমুখ।

আরো পড়ুন