শিরোনাম :

  • নয়াপল্টনে বিএনপির নেতাকর্মীদের সঙ্গে পুলিশের সংঘর্ষ জবানবন্দিতে বুলুসহ ১৫ বিএনপি নেতার নাম পেয়েছে পুলিশ সেনা অভ্যুত্থানবিরোধী বিক্ষোভে উত্তাল সুদান, সংঘর্ষে নিহত ৭দুই ট্রাকের মুখোমুখি সংঘর্ষ, নিহত ২
কেশবপুরে ১৭০ জন ছাত্রীর মাঝে সাইকেল বিতরণ করেন -শাহীন চাকলাদার, এমপি
এহসানুল হোসেন তাইফুর
১৩ জানুয়ারি, ২০২২ ১৫:৪৭:৩৪
প্রিন্টঅ-অ+

কেশবপুরে উপজেলা প্রশাসনের উদ্যোগে এডিপির অর্থায়নে বুধবার বিকেলে বাইসাইকেল বিতরণ করা হয়েছে। প্রধান অতিথি হিসাবে যশোর- ৬ আসনের সংসদ সদস্য ও যশোর জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শাহীন চাকলাদার উপজেলার বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ১৭০ জন ছাত্রীদের মাঝে ওই সাইকেল বিতরণ করেন। এ সময় প্রতিবন্ধীদের মাঝে ২৯টি হুইল চেয়ার ও ৯টি প্রতিষ্ঠানে হারমনিয়াম ও তবলা বিতরণ করা হয়।


উপজেলা নির্বাহী অফিসার এম এম আরাফাত হোসেনের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে ছাত্রীদের মাঝে সাইকেল বিতরণ করেন যশোর- ৬ আসনের সংসদ সদস্য ও যশোর জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শাহীন চাকলাদার। এ সময় উপস্থিত ছিলেন, কেশবপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এস এম রুহুল আমিন, যশোর জেলা আওয়ামী লীগের সদস্য, কেশবপুর পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি ও কেশবপুর পৌরসভার মেয়র রফিকুল ইসলাম, যশোর জেলা আওয়ামী লীগের যুব ও ক্রীড়া বিষয়ক সম্পাদক জিয়াউল হাসান হ্যাপী, শিক্ষা ও মানবসম্পদ বিষয়ক সম্পাদক এ এস এম আশিফুদ্দৌলা, কেশবপুর উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান নাসিমা সাদেক, কেশবপুর প্রেসক্লাবের সভাপতি আশরাফ-উজ-জামান খান, কেশবপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক পৌর কাউন্সিলর শেখ এবাদত সিদ্দিক বিপুল, দপ্তর সম্পাদক মফিজুর রহমান মফিজ প্রমুখ।  


উপজেলার বাউশলা মাধ্যমিক বালিকা বিদ্যালয়ের সপ্তম শ্রেণির ছাত্রী আরিফা আক্তার সাইকেল পেয়ে জানায়, প্রতিদিন দুই কিলোমিটার পথ হেটে স্কুলে যাতায়াত করতে হতো। বুধবার বিকেলে একটি নতুন বাইসাইকেল পেয়ে খুশি হয়ে বলে, আর কষ্ট করে পায়ে হেটে স্কুলে আসা যাওয়া করতে হবে না। এখন থেকেই বাইসাইকেল চালিয়ে স্কুলে আসা যাওয়া করবে। এতে তার কষ্ট কম হবে আর সময় সাশ্রয় করতে পেরে মন দিয়ে লেখাপড়াও এগিয়ে নিতে পারবে বলে সে এখন খুবই আনন্দিত।


ত্রিমোহিনী মাধ্যমিক বালিকা বিদ্যালয়ের সপ্তম শ্রেণির ছাত্রী তাসকিয়া ইয়াসমিন সাইকেল পেয়ে জানায়, তাকে প্রতিদিন ১০ টাকা ভ্যান ভাড়া দিয়ে স্কুলে যাতায়াত করতে হতো। সাইকেলটি পাওয়ায় তাকে আর ভ্যান ভাড়া দেওয়া লাগবে না। এতে তার পরিবারে প্রতিদিন ১০ টাকা সাশ্রয় হবে। অপর দিকে পায়ে গ্যাংরিন হয়ে চলা ফেরায় অসুবিধা হওয়া বীর মুক্তিযোদ্ধা আমীর আলী খা একটি হুইল চেয়ার পাওয়ার পর বলেন হুইল চেয়ারটিতে এখন থেকে তিনি সহজে চলা ফেরা করতে পারবেন। এতে তার যাতায়াতে সুবিধা হবে।

আরো পড়ুন