শিরোনাম :

  • নয়াপল্টনে বিএনপির নেতাকর্মীদের সঙ্গে পুলিশের সংঘর্ষ জবানবন্দিতে বুলুসহ ১৫ বিএনপি নেতার নাম পেয়েছে পুলিশ সেনা অভ্যুত্থানবিরোধী বিক্ষোভে উত্তাল সুদান, সংঘর্ষে নিহত ৭দুই ট্রাকের মুখোমুখি সংঘর্ষ, নিহত ২
খুনের আসামি মামুনকে খুঁজে বের করল র‌্যাব
১১ মার্চ, ২০২২ ১৫:১৬:৪২
প্রিন্টঅ-অ+

কদমতলীর টিটু হত্যা মামলায় যাবজ্জীবন সশ্রম কারাদÐপ্রাপ্ত মোহাম্মদ মামুন শেখকে (২৮) গ্রেপ্তার করেছে র‌্যাব।


র‌্যাব জানায়, ২০১৭ সালে মামুনের বিরুদ্ধে আনা অভিযোগ প্রমাণিত হওয়ায় তাকে আদালত যাবজ্জীবন সশ্রম কারাদÐে দÐিত করেন। আদালতের রায় প্রকাশের পর মামুন শেখ আত্মগোপনে চলে যান। মিথ্যা পরিচয়ে জাহাজ মিস্ত্রি হিসেবে কাজ করেন মামুন। গতকাল বৃহস্পতিবার ভোরে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে র‌্যাব-১০ এর একটি দল নারায়ণগঞ্জ জেলার সোনারগাঁওয়ের মেঘনা ঘাট এলাকা থেকে মামুন শেখকে গ্রেপ্তার করে।


দুপুরে যাত্রাবাড়ী র‌্যাব-১০ এর কার্যালয়ে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা জানান র‌্যাব-১০ এর অধিনায়ক (সিও) অতিরিক্ত ডিআইজি মাহফুজুর রহমান। তিনি বলেন, ২০১০ সালের ২৬ নভেম্বর কদমতলী থানাধীন আউটার সার্কুলার রোডে নোয়াখালী পট্টিতে পূর্ব শত্রæতার জের ধরে হুমায়ুন কবির ওরফে টিটুকে গুলি করে হত্যা করা হয়। আলোচিত হত্যাকাÐে জড়িত আসামিরা হলেন- মোহাম্মাদ মামুন শেখ (৩৩), সোহাগ ওরফে বড় সোহাগ (৩৪), সোহাগ ওরফে ছোট সোহাগসহ (৩০) অজ্ঞাতনামা আরও ৩-৪ জন।


মামুন শেখ  ২০১৪ সালে গ্রেপ্তার হয়েছিলেন। তবে জামিনে মুক্তি পেয়ে লাপাত্তা হয়ে যান তিনি। তিনি বলেন, প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে মামুন জানান লুকিয়ে থাকার জন্য মুন্সিগঞ্জে ৬ মাস, যশোরে ৯ মাস, মেঘনা ঘাট লাকি ডগইয়ার্ডে ৫ মাস, ধামরাইয়ে ৪ মাস, নবীনগরে ২ মাস করেসহ বিভিন্ন এলাকায় মিথ্যা পরিচয়ে জাহাজ মিস্ত্রি হিসেবে কাজ করেন।

আরো পড়ুন