শিরোনাম :

  • জাতিসংঘের মাদকদ্রব্য বিষয়ক কমিশনের সদস্য হলো বাংলাদেশখালেদা জিয়ার সঙ্গে বাবুনগরীর কোনোদিন দেখা হয়নি : হেফাজত চট্টগ্রামে একদিনে আরও ৫ জনের মৃত্যু, শনাক্ত ২৮৭মধ্যরাতে হেফাজতের সহকারী মহাসচিব আতাউল্লাহ গ্রেফতারহেফাজত নেতাদের মুক্তি দাবি মান্নার
কোনটি সত্য? কোনটি মিথ্যা? নাসিরের স্ত্রী তামিমা
২৫ ফেব্রুয়ারি, ২০২১ ১২:০০:১৭
প্রিন্টঅ-অ+




সংবাদ সম্মেলনে ক্রিকেটার নাসিরের স্ত্রী তামিমা যে কাগজ দিয়েছেন তাতে দেখা যায় তিনি ২০১৬ সালে রাকিব হাসানকে তালাক দিয়েছেন।

আবার তার পাসপোর্টে দেখা যায় ২০১৮ সালে রাকিব হাসানকে স্বামী বলে উল্লেখ করেছেন তামিমা।

কোনটি সত্য? কোনটি মিথ্যা?



 



সংবাদ সম্মেলনে ক্রিকেটার মি. হোসেন এবং তার স্ত্রী দুইজনই বক্তব্য দেন।



প্রায় আধা ঘণ্টা ধরে চলা ওই সংবাদ সম্মেলনে তারা দুইজনই তামিমা সুলতানার প্রথম স্বামী রাকিব হাসানের অভিযোগকে মিথ্যা বলে দাবি করেছেন।



সংবাদ সম্মেলনে নাসির হোসেন বলেছেন, নিয়ম অনুযায়ী তামিমার বিবাহবিচ্ছেদ হয়েছে, এবং তামিমার বিয়ে ও সন্তান সম্পর্কে সব কিছু জেনেই তিনি বিয়ের সিদ্ধান্ত নিয়েছেন।



তিনি বলেছেন "আমরা যা করেছি 'লিগ্যাল ওয়ে'তে, বেআইনি কিছু করিনি। আমরা যথেষ্ট পরিনত, সুতরাং বুঝে শুনে আইনগতভাবে কাজ করেছি।"



গণমাধ্যম এবং সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে তামিমাকে নিয়ে ভুল এবং 'উল্টাপাল্টা' কিছু প্রচার করা হলে 'আইনগত ব্যবস্থা' নেয়া হবে বলে জানিয়েছেন নাসির হোসেন।



পুরো বিষয়টিতে তাদের দুইজনের পরিবারকে ভুগতে হচ্ছে বলে তারা উল্লেখ করেছেন।



তামিমার প্রথম স্বামী রাকিব হাসানের বিরুদ্ধে মানহানির মামলা করার কথাও বলেছেন নাসির হোসেন।



ক্রিকেটার নাসিরের বিরুদ্ধে মামলা, পিবিআইকে তদন্তের নির্দেশ



সংবাদ সম্মেলনে নাসির হোসেনের স্ত্রী তামিমা বলেছেন, রাকিব হাসানের সঙ্গে ২০১৭ সালে বিবাহবিচ্ছেদ হয় তার।



সংবাদ সম্মেলনে তারা তালাকের একটি কপি দেখান সাংবাদিকদের।



তামিমা বলেছেন, ২০১৯ সাল পর্যন্ত তাদের একমাত্র কন্যা তার কাছেই ছিল। এরপর ২০১৯ সালে রাকিব হাসানের পরিবার শিশুটিকে তাদের বাসায় নিয়ে যায়।



তিনি বলেন, "একমাত্র আমার একটি মেয়ে আছে, এইটা ছাড়া উনি (রাকিব) যা বলছেন, সবই মিথ্যা।"



এর আগে দুপুরে ঢাকার চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে ক্রিকেটার নাসির হোসেন ও তার স্ত্রী তামিমা সুলতানার বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেছেন তামিমার প্রথম স্বামী রাকিব হাসান।



মি. হাসান তামিমা সুলতানাকে নিজের স্ত্রী দাবি করে গত কয়েকদিন ধরে গণমাধ্যমে কথা বলে আসছেন। বিষয়টি নিয়ে বাংলাদেশের সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমেও ব্যাপক আলোচনা চলছে।



সংবাদ সম্মেলনে এই মামলার ব্যাপারে এখনো কিছু জানেন না উল্লেখ করে নাসির হোসেন বলেছেন, মামলা হলে আইনগতভাবে বিষয়টি মোকাবেলা করবেন তারা।



গত ১৪ই ফেব্রুয়ারি ঢাকার একটি রেস্তোরাঁয় এক অনুষ্ঠানে তামিমা সুলতানা ও নাসির হোসেন বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হন।



মি. হাসানের আইনজীবী ইশরাত হাসান বিবিসি বাংলাকে বলেছেন, আদালত 'তামিমা সুলতানার স্বামী' রাকিব হাসানের জবানবন্দী গ্রহণ করেছেন।



বিষয়টি তদন্তের জন্য পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন পিবিআইকে নির্দেশ দিয়েছে আদালত।



মার্চের ৩০ তারিখের মধ্যে তদন্ত প্রতিবেদন আদালতে জমা দিতে বলা হয়েছে পিবিআইকে।



এর আগে থানায় একটি জিডি করেছিলেন রাকিব হাসান।





MD/


আরো পড়ুন