শিরোনাম :

  • আজ পবিত্র শবে বরাত শবে বরাতে নিজ নিজ ঘরে বসে আল্লাহর ইবাদত করি : রাষ্ট্রপতি সৌভাগ্যের রজনী মানবজাতির জন্য শান্তি-সমৃদ্ধি বয়ে আনুক : প্রধানমন্ত্রী সৌদি আরবের রাষ্ট্রদূত হচ্ছেন জাবেদ পাটোয়ারী
গাইবান্ধায় গ্রেফতার দুই যুবক দিনাজপুরে বন্দুকযুদ্ধে নিহত
গাইবান্ধা প্রতিনিধি :
২০ ফেব্রুয়ারি, ২০২০ ১৩:২৯:৪০
প্রিন্টঅ-অ+


দিনাজপুরের নবাবগঞ্জ উপজেলায় গ্রেফতারের পর পুলিশের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ দুই যুবক নিহত হয়েছেন। তাদেরকে ডাকাত বলে দাবি করেছে পুলিশ।

বুধবার দিবাগত রাত সাড়ে ৩টার দিকে নবাবগঞ্জ উপজেলার ছোট মাগুরা এলাকায় ‘বন্দুকযুদ্ধের’ এ ঘটনা ঘটে। নিহতরা হলেন রফিকুল ইসলাম (২৮) ও ওয়াজেদ আলী (৩০)।

নিহত রফিকুল ইসলাম গাইবান্ধার সাদুল্লাপুর উপজেলার খদ্দ পাঠানপাড়া গ্রামের মোহাম্মদ আলীর ছেলে এবং ওয়াজেদ আলী দিনাজপুরের ঘোড়াঘাট উপজেলার কৃষ্ণরায়পুর গ্রামের আবদুল হামিদের ছেলে।

পুলিশের দাবি, নিহত দুই যুবক ডাকাত দলের সদস্য। নিহতরা ডাকাতি মামলার আসামি। বন্দুকযুদ্ধের সময় চার পুলিশ সদস্য আহত হয়েছেন। ঘটনাস্থল থেকে বেশ কিছু গুলির খোসা ও একটি পিস্তল উদ্ধার করা হয়েছে।

নবাবগঞ্জ থানা পুলিশের ওসি অশোক কুমার চৌহান বলেন, দিনাজপুরের নবাবগঞ্জে সড়ক ডাকাতির মামলার আসামি রফিকুল ইসলাম ও ওয়াজেদ আলীকে বুধবার সন্ধ্যায় গাইবান্ধা থেকে গ্রেফতার করা হয়। তাদের স্বীকারোক্তি অনুযায়ী রাত ৩টার দিকে অস্ত্র উদ্ধারে নবাবগঞ্জ উপজেলার ছোট মাগুড়াগ্রামে যায় পুলিশ। কিন্তু সেখানে আগে থেকেই অবস্থান করা ডাকাত দল পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলি ছোড়ে।

এ সময় গ্রেফতারকৃত দুই ডাকাতও ছোটাছুটি করে পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে। পুলিশ ও ডাকাত দলের গোলাগুলিতে দুই ডাকাত গুলিবিদ্ধ হয়। পরে গুলিবিদ্ধ রফিকুল ইসলাম ও ওয়াজেদ আলীকে উদ্ধার করে নবাবগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিলে মৃত ঘোষণা করেন চিকিৎসক।

বন্দুকযুদ্ধের সময় ডাকাত দলের গুলিতে আহত হন চার পুলিশ সদস্য। আহত পুলিশ সদস্যরা হলেন নবাবগঞ্জ থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মতিয়ার রহমান, কনস্টেবল রমেন মানিক, কনস্টেবল আবদুল কাদের ও কনস্টেবল তুষার রায়। তাদের নবাবগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। নিহত দুই ডাকাতের মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য দিনাজপুর এম আবদুর রহিম মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে বলেও জানান ওসি অশোক কুমার।



আমার বার্তা/২০ ফেব্রুয়ারি ২০২০/জহির


আরো পড়ুন